কলকাতা: করোনা আতঙ্কে ঘুম ছুটেছে গোটা বিশ্বের। আর এবার করোনার সংক্রমণ রুখতে বাজারে এল কাউপ্যাথি স্যানিটাইজার। করোনার সংক্রমণ রুখতে হু-হু করে বিক্রি বেড়েছে গোমূত্র দিয়ে তৈরি এই তরল সাবানের। একাধিক ই–কমার্স সাইটে বিক্রি বেড়েছে হ্যান্ড স্যানিটাইজার এবং ঘুঁটে দিয়ে তৈরি সাবানের।

দিনকয়েক আগেই করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ রুখতে গোমূত্র পান করার নিদান দেয় হিন্দু মহাসভা। সেই কারণেই দেশজুড়ে গোমূত্র পার্টির আয়োজন করেছিল হিন্দু মহাসভা। হিন্দু মহাসভা ও বেশ কয়েকজন বিজেপি নেতাও করোনার সংক্রমণ রুখতে গোমূত্র পান করার পরামর্শ দিয়েছেন। এরই মধ্যে বাজার চলে এসে গিয়েছে এই বিশেষ হ্যান্ড স্যানিটাইজার।

গত কয়েকদিনে লাফিয়ে বেড়েছে গোমূত্র দিয়ে তৈরি এই তরল সাবানের। শুধু কাউপ্যাথি স্যানিটাইজারই নয়। হাত-মুখ পরিস্কার রাখতে গত কয়েকদিনে রমরমিয়ে বিক্রি হচ্ছে ঘুঁটে দিয়ে তৈরি সাবান। গোমূত্র দিয়ে তৈরি ৫০ মিলিলিটারের ২টি হ্যান্ড স্যানিটাইজার পাওয়া যাচ্ছে মাত্র ১০০ টাকায়। অনলাইনে ২১০ টাকায় পাওয়া যাচ্ছে গরুর গোবর থেকে তৈরি সাবানের।

দিন কয়েক আগেই করোনা রুখতে গোমূত্র পান করার নিদান দিয়েছিলেন হিন্দু মহাসভার সভাপতি চক্রপাণি মহারাজ। এমনকী আমিশ ভোজীদের শাস্তি দিতেই নাকি করোনা ভাইরাসের আগমন বলে মত ছিল তাঁর। তবে গোমূত্র ও গরুর গোবরের ব্যবহারে করোনার মতো মারণ ভাইরাসের সংক্রমণ রুখে দেওয়া সম্ভব বলে দাবি করেন তিনি। এমনকী এবিষয়ে সচেতনতা বাড়াতে দেশজুড়ে গোমূত্র পার্টির আয়োজনের কথাও বলেন তিনি।

হিন্দু মহাসভার সভাপতির এই নিদানের পর থেকেই বিষয়টি নিয়ে বিভিন্ন মহলে চর্চা শুরু হয়ে যায়। সুযোগ বুঝে ই-কমার্স সংস্থাগুলিও বিপুল পরিমাণে কাউপ্যাথি স্যানিটাইজার মজুত করে। তরল এই সাবান গত কয়েকদিনে হু হু করে বিক্রি হচ্ছে।

দেশের বিভিন্ন প্রান্তে গরুর মূত্র দিয়ে তৈরি এই তরল সাবানের বিক্রি বেড়েছে। শুধু গোমূত্র দিয়ে তৈরি তরল সাবানই নয়, গোবর থেকে তৈরির ঘুঁটের সাবানেরও বিক্রি বেড়েছে। গরু থেকে মেলা যাবতীয় সামগ্রীরই বিক্রি গত কয়েকদিনে কয়েক গুণ বেড়েছে।

প্রশ্ন অনেক-এর বিশেষ পর্ব 'দশভূজা'য় মুখোমুখি ঝুলন গোস্বামী।