হাওড়া: অ্যাম্বুল্যান্স না পেয়ে করোনা আক্রান্ত রোগীর মৃত্যু৷ অমানবিক ঘটনাটি ঘটেছে হাওড়ার লিলুয়া থানার অন্তর্গত গুহ পার্ক এলাকায়৷ বারবার চেষ্টা করেও অ্যাম্বুল্যান্স মেলেনি বলে অভিযোগ মৃতের পরিবারের৷

অ্যাম্বুল্যান্স না পেয়ে মৃত্যু হাওড়ার এক করোনা আক্রান্ত যুবকের৷ জানা গিয়েছে, কিছুদিন আগে ওই যুবকের বাবা করোনায় আক্রান্ত হয়েছিলেন৷ পরে তিনি সুস্থ হয়ে বাড়িতে ফিরে আসেন৷ কিন্তু ছেলে অসুস্থ হয়ে পড়লে হাসপাতালে পাঠানো হয়৷

পরিবারের দাবি, ২৫ জুলাই হাসপাতাল থেকে বাড়ি ফেরেন৷ উপসর্গ ছিল না বলে হাসপাতাল থেকে তাঁকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছিল৷ তারপর বাড়িতে এসে ভালো ছিল কিন্তু রবিবার থেকে তাঁর শ্বাসকষ্ট শুরু হয়৷ বারবার চেষ্টা করেও অ্যাম্বুল্যান্স না মেলায়,শেষ পর্যন্ত বাড়িতেই মৃত্যু হল৷

অভিযোগ, ভোর রাত থেকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার জন্য বিভিন্ন জায়গায় ফোন করেও অ্যাম্বুল্যান্স পাওয়া যায়নি৷ মিলেনি ভাড়ার গাড়িও৷ এমনকি পুলিশ,পুরসভা, হাসপাতালে যোগাযোগ করা হলেও সাহায্য পাওয়া যায়নি৷ যদিও লিলুয়া থানা ও পুরসভার দাবি,তাঁদের সঙ্গে কোনও যোগাযোগই করা হয়নি৷

এদিকে মৃত্যুর খবর পেয়ে আজ সোমবার দুপুরে পুলিশ ও স্বাস্থ্যকর্মীরা ওই যুবকের বাড়ি এসে পৌঁছন মৃতদেহ নিয়ে যাওয়ার জন্য৷

রবিবার রাজ্য স্বাস্থ্য ভবনের বুলেটিনের তথ্য অনুযায়ী,আক্রান্ত ও মৃতের দিক থেকে হাওড়া জেলা তৃতীয় স্থানে৷ এই জেলায় একদিনে আক্রান্ত ২৪৫জন৷ মোট আক্রান্তের সংখ্যাটা ৮,২৫৭ জন৷ ২৪ ঘন্টায় মৃত্যু হয়েছে ৭ জনের৷ মোট মৃতের সংখ্যাটা বেড়ে দাঁড়াল ২১২ জনে৷ একদিনে সুস্থ হয়ে উঠেছেন ২৪২ জন৷ মোট সুস্থ হয়েছেন ৬,০৮১ জন৷ অ্যাক্টিভ আক্রান্তের সংখ্যা ১,৯৬৪ জন৷

পপ্রশ্ন অনেক: একাদশ পর্ব

লকডাউনে গৃহবন্দি শিশুরা। অভিভাবকদের জন্য টিপস দিচ্ছেন মনোরোগ বিশেষজ্ঞ।