নয়াদিল্লি: রাজধানীর পরিস্থিতি নিয়ে এবার রাষ্ট্রপতির দ্বারস্থ হল কংগ্রেস। দিল্লির হিংসার ঘটনায় কেন্দ্রকে কাঠগড়ায় তুলে মোদী-শাহদের বিরুদ্ধে রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দকে নালিশ সনিয়া গান্ধী, মনমোহন সিংদের। সংবিধানের রক্ষক হিসেবে দিল্লির পরিস্থিতি রুখতে রাষ্ট্রপতিকে যথোপযুক্ত পদক্ষেপ করতেও আর্জি জানালেন কংগ্রেস প্রতিনিধিরা।

নতুন করে গন্ডগোল না ছড়ালেও বৃহস্পতিবার সকাল পর্যন্ত দিল্লির সংঘর্ষে মৃত বেড়ে ৩৪। সংঘর্ষে দুশোরও বেশি মানুষ আহত হয়ে বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। এদিকে, দিল্লির পরিস্থিতি নিয়ে এদিন সকালে রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দের সঙ্গে দেখা করে কংগ্রেস প্রতিনিধি দল। তার আগে দলের সদর দফতর থেকে মিছিল করে রাষ্ট্রপতি ভবন পর্যন্ত যান কংগ্রেস প্রতিনিধিরা। রাষ্ট্রপতির সঙ্গে দেখা করে মোদী-শাহের বিরুদ্ধে নালিশ জানান সনিয়া গান্ধী, মনমোহন সিংরা।

কেন্দ্রীয় সরকারের ব্যর্থতার কারণেই দিল্লির আইনশৃঙ্খলা ভেঙে পড়েছে বলে অভিযোগ অন্তর্বর্তীকালীন কংগ্রেস সভানেত্রী সনিয়া গান্ধীর। কংগ্রেস সভানেত্রীর অভিযোগ, দিল্লিতে হিংসা ও লুছে মদত দিচ্ছে কেন্দ্রের বিজেপি সরকার। রাষ্ট্রপতি ভবন থেকে বেরিয়ে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হন কংগ্রেস নেতৃত্ব।

কেন্দ্রকে দুষে সনিয়া গান্ধী বলেন, ‘গত ৪ দিন ধরে দিল্লিতে সংঘর্ষ চলছে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে পুরোপুরি ব্যর্থ কেন্দ্রীয় সরকার। সংঘর্ষে ৩৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। দুশোরও বেশি মানুষ আহত হয়েছেন। রাষ্ট্রপতি সংবিধানের রক্ষক। তাঁকে যথোপযুক্ত পদক্ষেপ করতে অনুরোধ জানিয়েছি।’ একইসঙ্গে এদিনও কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের পদত্যাগ দাবি করেছেন সনিয়া গান্ধী।

প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী মনমোহন সিংও এদিন দিল্লির আইনশৃঙ্খলার পরিবেশ নিয়ে কড়া সমালোচনা করেছেন কেন্দ্রীয় সরকারের। তাঁর অভিযোগ, ‘কেন্দ্রের ব্যর্থতার জন্যই দিল্লিতে সংঘর্ষ রোখা যায়নি। রাষ্ট্রপতিকে পরিস্থিতির কথা জানিয়েছি। ওঁকে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে আবেদন করেছি। সরকারকে রাজধর্ণ স্মরণ করাতে বলেছি রাষ্ট্রপতিকে।’