স্টাফ রিপোর্টার, জলপাইগুড়ি: বিজেপির নেত্রী প্রচার করতে গিয়ে কংগ্রেস কাউন্সিলরের হাতে হেনস্থার অভিযোগ উঠল। ওই কাউন্সিলর সহ অন্যান্যদের বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ দায়ের করল বিজেপি নেত্রী। ঘটনাটি জলপাইগুড়ি শহরের ২৪ নং ওয়ার্ডের৷ পুলিশ ঘটনায় তদন্ত শুরু করেছে।

আরও পড়ুন- সোনা জয়ী স্বপ্নার মায়ের হাত দিয়ে উদ্বোধন রাস্তা সংস্কারের কাজ

জানা গিয়েছে, জলপাইগুড়ি শহরে কিছু পরিবার প্রধান মন্ত্রী আবাস যোজনায় ঘর পেয়েছে৷ তাঁদের বাড়িতে প্রদীপ ও নরেন্দ্র মোদীর স্টিকার লাগাতে যান বিজেপি নেত্রী মায়া সরকার, বিদিশা সাহা সহ অন্যান্যরা৷ অভিযোগ তখন কংগ্রেস কাউন্সিলর তাঁদের উপর হামলা করে৷ সেই সময় বিজেপি নেত্রী ও কর্মীদের বিজেপি টাউন মণ্ডলের সভাপতি জিবেশ দাস বাঁচাতে আসে৷ তাঁর উপরও আক্রমণ করে কংগ্রেস কাউন্সিলর৷

আরও পড়ুন- নব প্রজন্মের স্বাধীনতা সংগ্রামীদের ভাবনা তুলে ধরার আহ্বান শুভেন্দুর

বিজেপি নেত্রী বিদিশা সাহা বলেন, ‘‘যারা ঘর পেয়েছেন তাদের অনুমতি নিয়ে কাজগুলো করছিলাম। সেই সময় স্থানীয় কাউন্সিলর অম্লান মুনসি, অনিক মুনসি সহ দল বল নিয়ে এসে আমাদের উপর আক্রমণ করেন। মোবাইল ছিনিয়ে নেওয়া হয়। অভিযুক্তদের গ্রেফতারের দাবিতে থানায় অভিযোগ দায়ের করেছি। ২৪ ঘণ্টার মধ্যে গ্রেফতার করা না হলে থানায় সামনে অবস্থান বিক্ষোভে সামিল হব আমরা৷’’

আরও পড়ুন- নাট্য উৎকর্ষ কেন্দ্রের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বাদ নাটকের বিশিষ্টজনরা

এদিকে ওই ওয়ার্ডের কংগ্রেস কাউন্সিলর অম্লান মুনসি বলেন, ‘‘বিজেপি দলের থেকে প্রচারে এসে তারা বলেন বিডিও অফিস থেকে এসেছেন৷ ওয়ার্ডের পরিবেশ নষ্ট করার চেষ্টা করছিলেন তারা। তাদের সঙ্গে কথা হয় ভালোভাবে। কোন রকম আক্রমণ কিংবা হেনস্থা করা হয়নি। সম্পূর্ণ মিথ্যে অভিযোগ।‌’’ পুলিশ ঘটনায় তদন্তে নেমেছে৷

পচামড়াজাত পণ্যের ফ্যাশনের দুনিয়ায় উজ্জ্বল তাঁর নাম, মুখোমুখি দশভূজা তাসলিমা মিজি।