হাওড়া: নয়া উদ্যোগ নিল নির্বাচন কমিশন৷ এবার ভোটারদের নির্বাচন সম্পর্কে সচেতন করতে তারা বেছে নিয়েছে রেলপথের যাত্রীদের৷ ভারতীয় রেলকে সঙ্গী করে এই বিষয়ে বেশ কিছু পদক্ষেপ নিয়েছে তারা৷

হাওড়া স্টেশন থেকে ‘হাওড়া আমেদাবাদ’ এক্সপ্রেসে ভোটারদের নির্বাচনে সচেতন করার উদ্দেশ্যে রওনা হয়। ফ্ল্যাগ অফ করে এর সূচনা করেন রাজ্যের মুখ্য নির্বাচন আধিকারিক আরিজ আফতাব। যেহেতু প্রতিদিন প্রায় ২৩ লক্ষ যাত্রী রেলে সফর করে থাকেন, তাই এবার সচেতনতার কাজে রেলকে অংশীদার করেছে নির্বাচন কমিশন৷

রাজ্যের মুখ্য নির্বাচন আধিকারিক আরিজ আফতাব বলেন, ‘‘নির্বাচন সম্পর্কে সচেতনতা বৃদ্ধি করতে নির্বাচন কমিশন ভারতীয় রেলের সঙ্গে যৌথভাবে উদ্যোগ নিয়েছে। ভারতে চারটি ট্রেনকে এই সচেতনতা প্রচারের কাজে ব্যবহার করা হচ্ছে। যাতে সচেতনতা বৃদ্ধি করা যায়। কলকাতা একটি ঐতিহাসিক স্থান যার সঙ্গে অনেক স্মৃতি জড়িয়ে রয়েছে। তাই এখান থেকে ঝাড়খণ্ড, ওড়িশা, ছত্তিসগড়, মধ্যপ্রদেশ, মহারাষ্ট্র হয়ে গুজরাট যাবে।’’

তিনি আরও জানান, ‘‘এটা একটা পার্টনারশিপ যেটা ইলেকশন কমিশন ডেভেলপ করছে ইন্ডিয়ান রেলওয়েজ টু স্প্রেড অ্যাওয়ারনেস অ্যাবাউট ইলেকশনের সঙ্গে। এখানে লেখা রয়েছে গো ভেরিফাই অর্থাৎ ইলেকটর রোলে নাম আছে কিনা তা যাচাই করে নেওয়া৷ গো ভোট অর্থাৎ গিয়ে ভোট দেওয়া৷ ইলেকশন কমিশনের যেটা প্রধান উদ্দেশ্য আছে নো ভোটার টু বি লেফট বিহাইন্ড অর্থাৎ যাতে কোনও ভোটার বাদ না পড়ে তারজন্য ইলেকশন কমিশন বিভিন্ন পার্টনারশিপ ডেভেলপ করেছে।

প্রতিদিন কয়েক লক্ষ যাত্রী ভারতীয় রেলে সফর করে থাকেন। এর মাধ্যমে সচেতন করা হচ্ছে যাতে মানুষ ভোটে অংশগ্রহণ করতে পারেন। ভিভিপ্যাট এবার নতুন একটি অ্যাডিশন আছে। মানুষ কাকে ভোট দিয়েছেন তা দেখতে পারবেন। এই নিয়েও সচেতনতা করা হচ্ছে। ভারতীয় রেলের মাধ্যমে নির্বাচন কমিশন এই সচেতনতার উদ্যোগ নিয়েছে।’’