সোশ্যাল সাইটের বিপুল পাঠক দেখবেন নতুন Kolkata24x7

এতোগুলো দিন, কলকাতা ২৪x৭ সংবাদ প্রতিষ্ঠান তার নামের সঙ্গে তাল মিলিয়ে চলেছে । দিন রাত নিরবিচ্ছিন্ন খবর, কখনো ভিডিও সংবাদ পাঠকদের কাছে পৌঁছে দিয়েছে, আবার কখনো পৌঁছে দিয়েছে সেই খবরের লাইভ হাল হকিকত ।

পথ চলা তো কম নয়। সেটা একবারে বলে ফেলা সম্ভব হয়ে ওঠে না। তাই এবার এসে পড়লাম ওয়েবসাইট থেকে আমাদের সোশ্যাল মিডিয়াতে। ফেসবুক, যা আমাদের চেনা প্ল্যাটফর্ম, সেখানে আমাদের অবস্থান দর্শকদের মনে বিরাট জায়গা নিয়ে। শুরু হয়েছিল ১০০ ফলোয়ার দিয়ে, এবং সেই সংখ্যা আজ গিয়ে ঠেকেছে ৫১ লক্ষ ফলোয়ারে।

সাম্প্রতিক একটি ভিডিও সংবাদ 'করোনা আক্রান্তদের জন্য সিপিআইএমের রেড ভলান্টিয়ার্স সংগঠন' ৭০ লক্ষ্যের ওপর ভিউয়ার ও ৩৭ লক্ষের বেশি ইমপ্রেশন টেনে নিয়েছিল।

কেমন ছিল সেই সব মুহূর্ত? পরপর এই রেখাচিত্রগুলো দেখলেই বোঝা যাবে। আমাদের সোশ্যাল মিডিয়ার পাঠক উপস্থিতির বিবরণ তুলে ধরলাম এই রেখাচিত্রগুলির মাধ্যমে। যেভাবে পথ চলা শুরু হয়েছিল, আমরা ভাবিনি যে কখনও এত বিরাট সাড়া মিলবে দর্শকদের কাছ থেকে।

আরও একটি, 'চাই আসকিরিম ম ম ম' শিরোনামের সংবাদটি রাজ্যে দারুণ সাড়া ফেলে দেয়।

রাজ্যের সংবাদ, দেশ, বিদেশের খবর, খেলা, অর্থনীতি, বিনোদন সব বিভাগেই উত্তরোত্তর দর্শক ও পাঠকের সংখ্যা নিয়ে আমরা এগিয়েছি বিগত বছরগুলিতে। www.kolkata24x7.com এর সোশ্যাল সাইট থেকেই স্পষ্ট হয় পাঠক মহলে এর ব্যাপকতা। দিবা-রাত্রি সংবাদ, সংবাদমূলক বিশ্লেষণ সবেতেই দর্শক ও পাঠকের উপস্থিতি বরাবর।

সাম্প্রতিক বিধানসভা ভোটের প্রসঙ্গ ধরা যাক। উত্তর ২৪ পরগনা জেলার বসিরহাট মহকুমার হিঙ্গলগঞ্জের একটি ভিডিও নিউজে আমরা অসাধারণ সাড়া পেয়েছি। প্রায় ১৩ লক্ষ ভিউয়ার হয় এই সংবাদে।

আরেকটু পিছিয়ে গিয়ে যদি আমরা দেখি তবে নীল-তৃণার বিয়ের ভিডিও নিউজে পাই আরও বেশি জনপ্রিয়তা। এতে ১ মিনিটের বেশি সময় ধরে ৩৫ লক্ষের বেশি ভিউয়ারশিপ হয়ে সেই সংবাদটি পৌঁছে যায় একদম শীর্ষে। এই ভাবেই চলতে থাকে আমাদের সফর।

শেষের কয়েকদিনও আমরা পেয়েছি একই রকম জনপ্রিয়তা। এবং বিধানসভা নির্বাচনের পরবর্তী সময়ের ভিডিও নিউজগুলি এনে দিয়েছে আরও বেশি জনপ্রিয়তা।

“কেন্দ্রীয় নিরাপত্তারক্ষী নিয়ে তথৈবচ অবস্থা বাঁকুড়ার শালতোড়া বিধানসভার বিধায়কের” - এই খবরটি পেয়েছিলো ৯ লক্ষের বেশি ভিউয়ারশিপ। এই খবর সপ্তাহের শীর্ষ সংবাদ হয়ে উঠে আসে।

কোভিড পরিস্থিতিতে করোনা আক্রান্তদের বাড়ি বাড়ি গিয়ে সহায়তা দেওয়া রেড ভলান্টিয়ার্স কর্মকাণ্ডের ছবি সহ আমাদের সংবাদ আলোড়ন ফেলে দেয় হাওড়ায়। অন্যান্য জেলাতে এই সংবাদের বিরাট প্রভাব পড়ে।

এই ভাবেই আমরা চলেছি। সামনে নতুন রূপে দেখা যাবে এই প্রতিষ্ঠানকে। ভিন্ন আঙ্গিকে ফিরে আসবোই। এই পথে আপনাদের পাশে নিয়ে আমরা চলব।