রিয়াধ: কলেজ শেষ করে উজ্জ্বল কেরিয়ার। আর তারপরে বিয়ে করে সুখের সংসার। সাধারণত এইরকমই ভাবনাচিন্তা থাকে মেয়েদের মনে। কিন্তু, উলটো পথে হেঁটে নয়া নজির গড়েছেন বছর ২৩-এর পালানি। কলেজের পড়া থামিয়ে সিরিয়ার পাড়ি দিয়েছেন ডেনমার্কের এই কলেজ পড়ুয়া। উদ্দেশ্য আইএস জঙ্গিদের খতম করা।

আরও পড়ুন : প্রকাশ্যে এল আইএস জল্লাদের পরিচয়

নয় বছর বয়স থেকে রাইফেল শুটিং শুরু করেছিলেন পালানি। সেই দক্ষতা যে এভাবে কাজে লেগে যাবে তা একবারের জন্যেও ভেবে দেখেননি। কলেজে দর্শন এবং রাজনীতি নিয়ে পড়াশোনা করা পালানির হবি বই পড়া। কিন্তু বইয়ের মধ্যে মুখ গুজে থাকা তরুণী কী সক্ষম হবেন আইএস নিধনে? আইএস জঙ্গিদের খতম করাটা যে খুব সহজ কাজ নয় তা একবাক্যে স্বীকার করে নিয়েছেন পালানি। যদিও যুদ্ধক্ষেত্র থেকে যে তিনি পালিয়ে যাবেন না তাও বুঝিয়ে দিয়েছেন খুব ভালোভাবে। তাঁর কথায়, “আমার বাবা-মা দু’জনেই পেশমেরগা বাহিনীর সঙ্গে দীর্ঘদিন ধরে যুক্ত ছিল। একাধিক যুদ্ধেও অংশগ্রহণ করেছিলেন। তাঁদের সন্তান হয়ে আমি পিছিয়ে যাব না।”

আরও পড়ুন: আইএস জঙ্গিদের নিশানায় ‘ফুটবল’!