স্টাফ রিপোর্টার, বারুইপুর: কেন্দ্রীয় বাহিনীর নাম করে আরএসএস-এর লোক ঢুকিয়ে দিচ্ছে বিজেপি৷ বিস্ফোরক অভিযোগ তৃণমূল সুপ্রিমো তথা রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের৷

ভোটের নিরাপত্তায় রয়েছে কেন্দ্রীয় বাহিনী৷ যা নিয়ে সরব তৃণমূল৷ এবার কেন্দ্রীয় বাহিনীর নাম করে বিজেপির কৌশল ফাঁস করলেন রাজ্যের শাসক দলের নেত্রী৷ তাঁর অভিযোগ, বিজেপির নির্দেশেই কমিশন রাজ্যে ভোটে ব্যাপক হারে কেন্দ্রীয় বাহিনীকে ব্যবহার করছে৷ এই বাহিনীর মধ্যে আরএসএস-এর লোক রয়েছে৷

আরও পড়ুন: মেরে তৃণমূল পোল এজেন্টের হাত ভাঙার অভিযোগ কেন্দ্রীয়বাহিনীর বিরুদ্ধে

কেন হঠাৎ এমনটা মনে হল মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের? তাঁর ব্যাখ্যাও দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী নিজেই৷ তৃণমূল নেত্রীর কথায়, কেন্দ্রীয় বাহিনী বহু জায়গায় মানুষের উপর অত্যাচার করছে৷ সরাসরি বিজেপিকে ভোট দিতে বলছে৷ প্রতিবাদ করলেই মারধর করছে৷ এমনকি গুলিও চালিয়ে দিচ্ছে৷ উদাহরণ হিসাবে তিনি তুলে ধরেন এদিন কেশপুরের ঘটনা৷ সেখানকেরেই তাঁর কাছে স্পষ্ট হয়েছে কেন্দ্রীয় বাহিনীর মধ্যে আরএসএস কর্মীদের ঢুকিয়ে দিয়েছে গেরুয়া শিবির৷

আরও পড়ুন: ভারতীর বিরুদ্ধে এফআইআর-এর নির্দেশ কমিশনের

এদিন দক্ষিণ ২৪ পরগনায় তিনটি সভা করেন মুখ্যমন্ত্রী৷ বাসন্তী, ক্যানিং ও বারুইপুরের সবায় বিজেপির বিরুদ্ধে সরব হতে দেখা যায় তৃণমূল সুপ্রিমোকে৷ বাসন্তীর সভায় মমতার পদ্ম বাহিনীকে কটাক্ষ করে বলেন, ‘‘বিজেপি ভাবছে আদা সেনা দিয়ে ভোট করিয়ে পার পেয়ে যাবে৷ কিন্তু ওদের ধারণা ভুল৷ বাংলার মানুষ ওসবে ভয়ে পায় না৷ তাই তো সিআরপিএফের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াচ্ছে৷’’

তাঁর প্রশ্ন, ‘‘এই তো স্পেশাল অবজার্ভার, মাইক্রো অবজার্ভার এল৷ কিন্তু কী হল তাতে?