দেবময় ঘোষ: কথায় আছে, মহম্মদের কাছে পাহাড় না এলে মহম্মদ পাহাড়ের কাছে চলে যান। পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান এবং সেনা প্রধান কমর জাভেদ বাজওয়ার সঙ্গে এমন কিছুই ঘটতে চলেছে। নেপাল হয়ে ভারত সফরে আসছেন চিনের প্রেসিডেন্ড শি জিন পিং। এযাত্রায় তিনি পাকিস্তানে পা রাখছেন না। অপমান, রাগ এবং হিংসায় জ্বলেপুড়ে ছাই হয়ে যাচ্ছে পাকিস্তান। কাশ্মীর নিয়ে এই ডামাডোলের বাজারে ‘ সব মরশুমের বন্ধু ‘ চিন প্রেসিডেন্ট ভারতে আসবে অথচ তাদের মাটিতে পা রাখবে না তা পাকিস্তানের সেনা এবং সরকারি প্রশাসন বিশ্বাস করতে পারেনি। তাই, ইমরান নিজেই চিনে যাবেন।

তবে মজার ব্যাপার, পাক প্রধানমন্ত্রী চিনে পা দেওয়ার অনেক আগেই সেখানে গিয়ে উঠেছেন পাক সেনা প্রধান কমর জাভেদ বাজওয়া তিনি চিনের সেনাপ্রধান সহ উচ্চ অফিসারদের সঙ্গে দেখা করবেন। ভারত সফর থেকে চিনের প্রেসিডেন্ট দেশে ফেরার পর অপেক্ষারত ইমরানের সঙ্গে তিনি দেখা করবেন। সেই সাক্ষাতে ইমরানের সঙ্গে থাকবেন বাজওয়া।

কূটনৈতিকস্তরে আলোচনা শুরু হয়েছে, ইমরানকে কী একা ছাড়তে রাজি নন বাজওয়া? কিছুদিন আগেই দেশের বানিজ্য মহলের সঙ্গে পাকসেনা এবং আইএসআই-প্রধান বৈঠক করেছেন। সেই বৈঠকে আমন্ত্রণ পাননি ইমরান। পাকিস্তান নিঃশব্দে আরেকটি সামরিক অভ্যুত্থানের দিকে এগিয়ে চলেছে, এই তথ্যকে উড়যে দিতে চাইছেন না অনেক সাংবাদিক – লেখকই। সেক্ষেত্রে দেশের প্রধানমন্ত্রীর আগে বাজওয়ার চিন গমন নিয়ে সন্দেহ এবং সন্দেহের বসে প্রশ্ন – এই দুই-ই বৃহৎ আকারে দেখা দিয়েছে।

প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে, দুই রাষ্ট্রপ্রধানের সঙগ্গে বৈঠকে বাজওয়া কী করবেন? চিনের সেনাপ্রধানও কী ওই সাক্ষাতে থাকবেন? যদি না থাকেন তবে বাজওয়ার ওই বৈঠকে কাজ কী? প্রসঙ্গত উল্লেখ করা যেতে পারে, আমেরিকায় প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের সঙ্গে ইমরানের সাম্প্রতিককালের প্রথম বৈঠকেও বাজওয়া উপস্থিত ছিলেন। অনেকেই বলছেন, বাজওয়া নিজেকে আন্তর্জাতিক নেতৃত্বের কাছে পরিচিত করে রাখতে চাইছেন। যেকোনও সময়ে ইমরানকে সিংহাসন থেকে দাক্কা মেরে ফেলে দিতে পারেন বাজওয়া। সেক্ষেত্রে পাকিস্তানের নতুন সেনাশাসক হিসাবে নিজেকে প্রতিষ্টা করতে পারেন বাজওয়া। পাকিস্তানে এই ঘটনা নতুন নয়। জেনারেল আইউব খান থেকে জিয়াউল হক থেকে জেনারেল পারভেজ মুশারফ – বারবার সেনা অভ্যুত্থান দেখেছে পাকিস্তান।

পাকিস্তান সেনার মুখপাত্র জেনারেল আসিফ গফুর টুইট করে জানিয়েছেন, সেনাপ্রধান বাজওয়া চিনে চলে গিয়েছেন। চিনের সেনাপ্রধান, চিনের সেন্ট্রাল মিলিটারি কমিশনের ভাইস চেয়ারম্যানের সঙ্গে তিনি দেখা করবেন। অসহায় বাজওয়ার আর কোনও উপায়ও নেই। কারণ, চিনের সেন্ট্রাল মিলিটারি কমিশনের চেয়ারম্যান স্বয়ং শি জিন পিং। তিনি ভারতে রয়েছেন। তবে ইমরান যে শি জিন পিং এর সঙ্গে একা থাকবেন না, তাও পরিষ্কার করে দিয়েছেন গফুরশি জিন পিং জানিযেছেন, প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে থাকবেন সেনাপ্রধান বাজওয়া।