ফাইল ছবি

মাদ্রিদ : বিস্ফোরক তথ্য প্রকাশ করল স্পেন। এল পেইস সংবাদপত্রে প্রকাশিত প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে স্পেনের একটি ল্যাবে সাইবার হামলা চালিয়েছ্ চিনা হ্যাকাররা। চুরি করা হয়েছে করোনা ভ্যাকসিনের রিসার্চ সংক্রান্ত যাবতীয় তথ্য। স্বাভাবিকভাবেই এই প্রতিবেদন চাঞ্চল্য সৃষ্টি করেছে।

করোনা পরিস্থিতি এমন এক জায়গায় দাঁড়িয়ে, যেখানে প্রায় সব দেশই কম বেশি ভ্যাকসিন তৈরির চেষ্টা করে চলেছে। ইতিমধ্যেই গোটা বিশ্ব জুড়ে ৯৪০,০০০ মানুষের মৃত্যু হয়েছে করোনা ভাইরাসে। আক্রান্ত হয়েছেন ৩০ মিলিয়নেরও বেশি মানুষ। সেই পরিস্থিতিতে এই তথ্য বেশ সাড়া ফেলে দিয়েছে।

তবে এই পরিস্থিতি কীভাবে তৈরি হল, ঠিক কোন ধরণের তথ্য চুরি গিয়েছে বা কবে হ্যাক করা হয়েছে, সে সম্পর্কে বিস্তারিত কিছু জানা যায়নি। স্পেনের গুপ্তচর সংস্থার প্রধান পাজ এস্তাবান বলেন উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে এই সাইবার হামলা হয়েছে। ভ্যাকসিন সংক্রান্ত তথ্যের হদিশ পেয়েই হামলা চালিয়েছে চিনা হ্যাকাররা।

সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলতে গিয়ে এস্তাবান বলেন লকডাউন চলাকালীন হ্যাকিংয়ের পরিমাণ বেড়েছে। নির্দিষ্ট ভাবে যে স্পেনকেই টার্গেট করা হচ্ছ, তা নয়। যে সব দেশ বিশেষ ভাবে করোনার ভ্যাকসিন বের করার জন্য চেষ্টা চালাচ্ছে ও প্রায় সফল হয়েছে, সেই সব দেশগুলির ভ্যাকসিন সংক্রান্ত তথ্য জানতেই হ্যাকিং করা হচ্ছে।

মূলত চিনা হ্যাকাররাই এই ধরণের সাইবার হামলা চালাচ্ছে বলে রিপোর্টে দাবি। তবে এর পাশে রাশিয়াও রয়েছে। এদিকে, রাশিয়া সরকার আগেই জানিয়েছে তাদের তৈরি বিশ্বের প্রথম করোনা টিকা স্পুটনিক ভি (স্পুটনিক ফাইভ) সর্বসাধারণের জন্য ক্রয়লব্ধ দামেই থাকছে। করোনা টিকার মূল্য নিয়ে মতামত দিয়েছে রাষ্ট্রসংঘ।

রাষ্ট্রসংঘের মহাসচিব আন্তেনিও গুতেরেস জানিয়েছেন, বাণিজ্যিকভাবে উৎপাদনে যাওয়ার পর করোনাভাইরাসের টিকা সবার জন্য সহজলভ্য করা হোক। গুতেরেস জানান, করোনাভাইরাস সংক্রমণ এখনও নিয়ন্ত্রণ করা যায়নি। মৃতের সংখ্যা ১০ লক্ষে পৌঁছে যাবে বলেই আশঙ্কা করেছেন তিনি।

বিশেষ করে পরবর্তী এক বছর সংক্রমণ দমন ও জীবন বাঁচাতে অতি গুরুত্বপূর্ণ চিকিৎসা দরকার। করোনাভাইরাসের টিকা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, এই ভাইরাস বিশ্বজোড়া মহামারী। এর সংক্রমণ যেহেতু কোনও দেশের গণ্ডীতে আটকে নেই, তাই করোনার টিকা বিশ্ববাসীর সম্পদ হিসেবে চিহ্নিত হোক। এই টিকা সবার জন্য সহজলভ্য করতে হবে।

প্রশ্ন অনেক-এর বিশেষ পর্ব 'দশভূজা'য় মুখোমুখি ঝুলন গোস্বামী।