বেজিং: এভারেস্টের চূড়ার আবর্জনা পরিষ্কার করল চিন৷ পরিষ্কার করা হল সাড়ে আট টন আবর্জনা৷ পর্বতারোহণের বিভিন্ন সময়ে এই আবর্জনা ফেলে যান পর্বতারোহীরা৷ সেগুলিই এবার পরিষ্কারে হাত দিল বেজিং।

এপ্রিল মাস থেকে বিশাল পরিমাণে জমে আবর্জনা পরিষ্কার করার কাজ শুরু করে চিন৷ ৩০জনের একটি দল এই কাজে নিযুক্ত ছিল৷ যাঁরা এই আবর্জনা পরিষ্কারের কাজ করেছেন তাঁদের দাবি, যথেষ্ট পরিশ্রমসাধ্য এই কাজ৷

২০১৭ সালে তিব্বতের দিক থেকে এভারেস্টে উঠেছিলেন ২০২জন অভিযাত্রী। নেপালের দিক থেকে উঠেছিলেন ৪৪৬জন। অন্যান্য দিক থেকে হাজারেরও বেশি অভিযাত্রী এভারেস্টে উঠেছেন বা ওঠার চেষ্টা করেছেন। তাঁদের নিত্য ব্যবহার্য জিনিস ফেলে আসার থেকেই দূষণ ছড়িয়েছে পাহাড় চূড়ায়।

২০১৫ সাল থেকে তিব্বত প্রশাসন প্রত্যেক অভিযাত্রীকে ৮ কিলোগ্রাম আবর্জনা ফেরত আনার জন্য দু’‌টি ব্যাগ দেয়। প্রতি এক কিলোগ্রাম আবর্জনা আনলে ব্যাগ পিছু একশো ডলার করে জরিমানাও নেওয়া হয়। ২০১৪ সাল থেকে নেপাল সরকারও এই নীতি নিয়েছে। তাতে দূষণের পরিমাণ কিছুটা হলেও কমেছে। এরই মধ্যে চিন সরকার এভারেস্টের পথে পরিবেশবান্ধব শৌচাগার বানানোর কথা ঘোষণা করেছে।

পপ্রশ্ন অনেক: চতুর্থ পর্ব

বর্ণ বৈষম্য নিয়ে যে প্রশ্ন, তার সমাধান কী শুধুই মাঝে মাঝে কিছু প্রতিবাদ