স্টাফ রিপোর্টার, আলিপুরদুয়ার: করোনা ভাইরাস আতঙ্কের জেরে ডুয়ার্সের বাজারগুলিতে মুরগির মাংস ও ডিমের চাহিদা একেবারেই নেই। মাথায় হাত মুরগী ব্যবসায়ীদের। আলিপুরদুয়ারের বড় বাজার থেকে শুরু করে ডুয়ার্সের বিস্তীর্ণ অঞ্চলের বিভিন্ন বাজারে বিক্রি নেই মুরগির মাংস ও ডিমের। করোনা ভাইরাস নিয়ে ইতিমধ্যেই কেন্দ্রীয় সরকার নির্দেশিকা জারি করেছে।

যদিও ব্যবসায়ী সংগঠনের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, মুরগির মাংস ও ডিম থেকে করোনার ভাইরাস ছড়ায় না। তাই মাংস ও ডিম নির্ভয়ে খাওয়া যেতে পারে। যদিও সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়া ‘গুজবে’ মুরগি থেকে একেবারেই মুখ ফিরিয়ে নিয়েছে ডুয়ার্সের মানুষ। বিক্রি পড়ে যাওয়ায় মুরগির দামও কমিয়ে দিয়েছেন বিক্রেতারা। ১২০-১১০ টাকা কিলো দরে এখানকার বাজারগুলিতে বর্তমানে মুরগি বিক্রি হচ্ছে। মুরগির মাংস থেকে আদৌ করোনা ভাইরাস ছড়ায় কিনা সে ব্যাপারে এখনও নিশ্চিত কিছু জানা যায়নি।

কিন্তু সোশ্যাল মিডিয়া ছড়িয়ে পড়া নানা সতর্কতা মূলক এলাকাবাসীর মধ্যে আতঙ্ক সৃষ্টি হয়েছে। আলিপুরদুয়ার বড় বাজারের মুরগির মাংস বিক্রেতা অরূপ নন্দী জানিয়েছেন, মানুষ থেকে মানুষের মধ্যে করোনা ভাইরাস ছড়াতে পারে। তবে পশুর থেকে করোনা ভাইরাস ছড়ানোর কোনও নিশ্চিত সতর্ক বার্তা জানা নেই। কিছু অসাধু মানুষ ফেসবুকে গুজব ছড়িয়েছে। আর তাতেই আমাদের ব্যবসা ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে।

অন্যদিকে মুরগি থেকে বিক্রেতারা মুখ ফিরিয়ে নেওয়ার কারণে খাসির মাংস ও মাছ বাজারে ভিড় বেড়েছে। এক খাসির মাংস বিক্রেতা জানিয়েছে, কয়েক দিন ধরে ভালই বিক্রি হচ্ছে। খাসির মাংসের চাহিদা বেড়েছে ঠিকই তবে দাম বাড়েনি। ৬৮০ টাকা কেজিতে বিক্রি হচ্ছে খাসির মাংস।

Proshno Onek II First Episode II Kolorob TV