স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা: সমাজবিরোধীর সঙ্গে একমঞ্চে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ ‘‘২৩ এপ্রিল বুথ দখলের জন্যই ওই সমাজ বিরোধীকে পাশে বসিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী৷’’চাঞ্চল্যকর অভিযোগ কংগ্রেসের সাংসদ প্রদীপ ভট্টাচার্যের৷

বৃহস্পতিবার মালদহে বেশ কয়েকটি সভা করেন তৃণমূল সুপ্রিমো৷ উত্তর মালদহের প্রার্থী মৌসম নূরের সমর্থনে সামসিতে সভা করেন মমতা৷ প্রদীপ ভট্টাচার্যের দাবি, এই সভাতেই মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গেই মঞ্চে ছিলেন মহঃ ইয়াসিন নামে ওই ব্যক্তি৷ তার বাড়ি মালদহের রতুয়া ২ নম্বর ব্লকের বাহারাল অঞ্চলের সাহাপুর গ্রামে৷ ইয়াসিন একজন সমাজ বিরোধী৷ একাধিকবার সে জেল খেটেছে৷ দাবি বর্ষিয়ান কংগ্রেস নেতা প্রদীপ ভট্টাচার্য৷

দ্বিতীয় দফার ভোট নিয়ে এদিন ক্ষোভ প্রকাশ করেন কংগ্রেসের এই বর্ষীয়ান নেতা৷ তিনি বলেন, দ্বিতীয় দফার নির্বাচনে বোমা বাজি, রিগিং চরম আকারে হয়েছে৷ সব বুথে কেন্দ্রীয় বাহিনী রাখা হয়নি৷ কমিশনে আমরা অভিযোগ জানিয়েছি৷ কিন্তু কমিশন নীরব৷ দেখে মনে হয়েছে রাজ্য সরকার ও নির্বাচন কমিশনের মধ্যে গোপন আঁতাত তৈরি হয়েছে৷তবে মানুষ রুখে দাঁড়িয়েছে৷এর থেকে পরিস্কার শাসক দলের অত্যাচারে সাধারন মানুষের দেওয়ালে পিঠ ঠেকে গিয়েছে৷ এবার প্রতিরোধ গড়তে তাঁরা নিজেরাই এগিয়ে আসছেন৷

ছেলে ইশা খান চৌধুরীকে উত্তর মালদহে প্রার্থী করায় এদিন দক্ষিণ মালদহের কংগ্রেস প্রার্থী আবু হাসেম খান চৌধুরীকে কটাক্ষ করেন মমতা৷ প্রদীপ ভট্টাচার্য তার পাল্টা বলেন, ‘‘মুখ্যমন্ত্রী যদি নিজের ভাইপোকে প্রার্থী করতে পারেন তাহলে আবু হাসেম খান চোধুরীও ছেলে ইশাকে প্রার্থী করতে পারেন৷’’