পোর্তো: অনুশীলনের মাঝেই হৃদরোগে আক্রান্ত হলেন কিংবদন্তি গোলকিপার ইকার ক্যাসিয়াস৷ রিয়াল মাদ্রিদ তথা স্পেনের সর্বকালের সেরা গোলরক্ষক এই মুহূর্তে পর্তুগীজ ক্লাব এফসি পোর্তোয় খেলছেন৷ ২০১৫ সালে রিয়াল মাদ্রিদ ছাড়ার পর থেকেই পর্তুগালে আস্তানা গেড়েছেন বিশ্বকাপজয়ী এই গোলকিপার৷

বুধবার সকালে যথারীতি দলের সঙ্গে অনুশীলন করছিলেন ক্যাসিয়াস৷ প্র্যাকটিসের সময় বুকে ব্যথা অনুভব করেন তিনি৷ টিম ডাক্তার ক্যাসিয়াসের অসুস্থতার লক্ষণ বুঝতে ভুল করেননি৷ তড়িঘড়ি তাঁকে সিইউএফ পোর্তো হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়৷ ৩৭ বছর বয়সি ক্যাসিয়াসের হৃদযন্ত্রে অস্ত্রোপচার করা হয়৷ আপাতত বিপম্মুক্ত তিনি৷

আরও পড়ুন: বর্ষসেরা ফুটবলারের পুরস্কার জিতলেন লিভারপুল তারকা

ক্যাসিয়াসের হৃদরোগে আক্রান্ত হওয়ার খবরে নড়েচড়ে বসে আন্তর্জাতিক ফুটবলমহল৷ ফুটবলবিশ্বের প্রতিটি প্রান্ত থেকে শুধু অনুরাগীরাই নন, তারকা ফুটবলাররাও দ্রুত সুস্থতা কামণা করে সোশ্যাল মিডিয়ায় বার্তা দেন৷ রিয়াল মাদ্রিদ ও স্পেনের ফুটবলার বন্ধুরা ছাড়াও বার্সেলোনা ক্লাবের তরফেও ক্যাসিয়াসের সুস্থতা কামণা করা হয়৷ পরে হাসপাতাল থেকেই ক্যাসিয়াস সকলকে ধন্যবাদ জানিয়ে বলেন যে, তিনি ভয়ানক পরিস্থিতির মুখে পড়লেও পরিস্থিতির সঙ্গে লড়াই করার ক্ষমতা রয়েছে তাঁর৷ আপাতত তিনি ভালো আছেন৷

সুস্থ হয়ে উঠলেও ক্যাসিয়াস সম্ভবত চলতি মরশুমে আর মাঠে নামতে পারবেন না৷ এবছর পোর্তোকে চ্যাম্পিয়ন্স লিগের নক-আউটে নিয়ে যেতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালণ করেন তিনি৷ রিয়ালের হয়ে রেকর্ড ৭২৫টি ম্যাচ খেলা ক্যাসিয়াস পাঁচবার লা লিগা চ্যাম্পিয়ন হয়েছেন৷ তিনবার জিতেছেন চ্যাম্পিয়ন্স লিগ৷ দু’টি কোপা ডেল রে’র পদক ঝুলিয়েছেন গলায়৷ সব মিলিয়ে মাদ্রিদকে তিনি মোট ১৯টি ট্রফি দিয়েছেন৷

আরও পড়ুন: মাদ্রিদ, তুরিনের পর লন্ডনেও অব্যাহত আয়াক্সের স্বপ্নের দৌড়

ক্যাসিয়াস তেকাঠির নীচে থাকার সময় ২০১০ বিশ্বকাপ চ্যাম্পিয়ন হয়েছে স্পেন৷ এছাড়া ২০০৮ ও ২০১২ ইউরোকাপজয়ী স্পেন দলের সদস্য ছিলেন ক্যাসিয়াস৷ পোর্তোকেও ইতিমধ্যেই একটি লিগসহ দু’টি ট্রফি দিয়েছেন স্প্যানিশ গোলকিপার৷