ঢাকা: বিমানবন্দরে আজব কাণ্ড। সিকিউরিটি চেকিংয়ের সময় বেল্ট খুলতে বলায় প্যান্ট খুলে ফেললেন এক ব্যক্তি।

বাংলাদেশের ইউএস-বাংলা এয়ারলাইনসের সিনিয়র কেবিন ক্রু এই ব্যক্তি। সিকিউরিটি চেকিংয়ে বেল্ট খোলার নিয়ম মনে করিয়ে দিতেই জামা-প্যান্ট খুলে ফেলেন তিনি। স্বাভাবিকভাবেই ভাইরাল হয়ে যায় সেই ভিডিও। প্রত্যক্ষদর্শীরা রীতিমত হতভম্ব হয়ে যান এই ঘটনায়। বুধবার বাংলাদেশের হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের অভ্যন্তরীণ টার্মিনালে এই ঘটনা ঘটে।

ইউএস-বাংলা এয়ারলাইনসের সিনিয়র কেবিন ক্রু শাহফিকুর রহমানকে বেল্ট খুলতে বলা হয়। তিনি আচমকা উত্তেজিত হয়ে জামা-প্যান্ট খুলে ফেলেন। এই ঘটনার জেরে তাঁকে বিমানবন্দরের এভিয়েশন সিকিউরিটির সদস্যদের হেফাজতে নেওয়া হয়। পরে অবশ্য তাঁকে ছাড়িয়ে নিয়ে গিয়েছে ইউএস-বাংলা কর্তৃপক্ষ।

বিমানবন্দর সূত্রে জানা গিয়েছে, বুধবার নতুন নিয়োগপ্রাপ্ত কেবিন ক্রুদের প্রশিক্ষণের জন্য বিমানবন্দরে নিয়ে আসে ইউএস-বাংলা কর্তৃপক্ষ। ১৯ জন কেবিন ক্রু প্রথমে চেকিং ছাড়াই প্রি-বোর্ডিং চেকিং গেট অতিক্রম করেন। নিরাপত্তাকর্মীরা তাদের ডেকে পুনরায় চেকিংয়ের কথা বলেন। কেবিন ক্রুরা বিমানবন্দরে প্রবেশের কোনও কাগজপত্র দেখাতে পারেনি।

ভবিষ্যতে এ ধরনের ঘটনার পুনরাবৃত্তি হবে না বলে জানিয়েছে সংশ্লিষ্ট ওই এয়ারলাইনস। এমনটাই জানিয়েছেন একজন সিকিউরিটি অফিসার।

ইউএস-বাংলা এয়ারলাইনসের তরফ থেকেও ঘটনার ব্যাখ্যা দেওয়া হয়েছে। জানানো হয়েছে, কেবিন ক্রু’র প্যান্টের ভেতর আরেকটি থ্রি কোয়ার্টার প্যান্ট ছিল। আর্চওয়েতে বেল্ট খোলার পরও ধাতব বস্তু থাকার শব্দ হচ্ছিল। তখন আনসার সদস্যদের তিনি জানান, থ্রি কোয়ার্টার প্যান্টে বোতাম থাকার কারণে শব্দ হতে পারে। তখন আনসার সদস্যরা তাকে প্যান্ট খুলে থ্রি কোয়ার্টার প্যান্ট দেখাতে বলেন। এ কারণেই তিনি প্যান্ট খুলে দেখিয়েছেন ওই কেবিন ক্রু।

তাঁদের দাবি, সিকিউরিটি চেকিংয়ের জন্য কেবিন ক্রুদের বিব্রতকর পরিস্থিতিতে পড়তে হয়। তখন রাগ দেখিয়ে তিনি কিছু কথা বলেন। পরবর্তী সময়ে সংস্থার প্রতিনিধি ও এভসেকের প্রতিনিধিরা বিষয়টি নিয়ে কথা বলেন। তারা এ নিয়ে দুঃখ প্রকাশ করেছেন।