বর্ধমান (পূর্ব বর্ধমান): অস্থায়ী শিক্ষক শিক্ষিকাদের স্থায়ী করে দিলে বিশ্ববিদ্যালয়স্তরে গবেষকরা চরমভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হবেন। স্থায়ীকরণের ফলে কলেজস্তরে চাকরী প্রার্থীদের যে আসন থাকার কথা তা এক ধাক্কায় অনেকটা কমে যাবে। এই যুক্তি তুলে বিক্ষোভে সামিল হলেন বর্ধমান বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকরা।

কল্যাণীতে প্যারা টিচারদের অবস্থানে পুলিশের লাঠি চালনার জেরে বিতর্ক চরমে। এর পর মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় অস্থায়ী শিক্ষক শিক্ষিকাদের স্থায়ীকরণের কথা ঘোষণা করেছেন।

মুখ্যমন্ত্রীর সেই ঘোষণার পরেই প্রতিবাদে বর্ধমান বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকদের পাল্টা যুক্তি, বিশ্ববিদ্যালয় স্তরে গবেষণা করার পরও দেখা যাবে তাদের থেকে কম মেধা সম্পন্নরা চাকরি পেয়ে যাবেন। এতে করে মেধার সঠিক মূল্যায়ন হবে না। এই দাবি তুলে মঙ্গলবার প্রতিবাদ মিছিল কেন তাঁরা।

বিক্ষোভকারী গবেষকদের দাবি, মুখ্যমন্ত্রীর ঘোষিত স্থায়ীকরণের ফলে দেখা যাচ্ছে প্রায় ১৩০০০ আসন একধাক্কায় পূর্ণ হয়ে যাচ্ছে। যা প্রায় ৪টে পরীক্ষার আসনের সমান। আন্দোলনরত গবেষকরা জানিয়েছেন, অবিলম্বে ঘোষণার পুনর্বিবেচনা করা না হল তাঁরা আগামী দিনে বৃহত্তর আন্দোলনের পথে যাবেন।