নয়াদিল্লিঃ  গত লোকসভা নির্বাচনে ভোট প্রচারে এসে আগামী বিধানসভা নির্বাচনে এসে কার্যত ঘুঁটি সাজিয়ে ফেলেছেন মোদী। শুধু প্রধানমন্ত্রীই নন, ভোট প্রচারে এসে বারবার বিজেপি নেতারা বুঝিয়ে দিয়েছেন যে বাংলায় পাখির চোখ বিধানসভা নির্বাচনই। এবার বাজেটেও বাংলাকে বাড়তি গুরুত্ব দিলেন অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমণ। হলদিয়া এবং ফারাক্কাকে বিশেষ গুরুত্ব দেওয়া হল বাজেটে। দ্বিতীয় মোদী সরকারের বাজেটে এই প্রস্তাবে খুশি বাংলার বিজেপি বিধায়করা।

আজ শুক্রবার আর্থিক বছরের বাজেট পেশ করেন নির্মলা সীতারমণ। বাজেট বক্তব্যে তিনি জানান, বারাণসীর ধাঁচে এবার হলদিয়াতেও তৈরি করা হবে টার্মিনাল সেন্টার। শুধু তাই নয়, ফরাক্কাতেও টার্মিনাল লক তৈরি করার প্রস্তাব দেন অর্থমন্ত্রী। জলমার্গ বিকাশ প্রকল্পের আওতায় এই টার্মিনাল সেন্টার ও টার্মিনাল লক গড়ে তোলা হবে জানিয়েছেন তিনি। আগামী বছর অর্থাৎ ২০২০ সালের মধ্যেই কাজ শেষ হবে বলে জানিয়েছেন তিনি।

২০২১ সালে বাংলায় বিধানসভা নির্বাচন। আর সেই নির্বাচনের আগেই বাজেটে প্রস্তাবিত এই কাজগুলি শেষ হবে প্রতিশ্রুতি দেওয়া হয়েছে। রাজনৈতিকমহলের মতে, এটা খুব পরিস্কার যে ভোটের দিকে তাকিয়েই বাজেটে এহেন প্রকল্প নেওয়া হয়েছে।

অন্যদিকে বাজেট ভাষনে অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমণ বলেন, আগামীদিনে জলপথে পণ্য পরিবহণে বিশেষ গুরুত্ব দেওয়া হবে। বিশেষ কর গঙ্গাকে গুরুত্ব দেওয়া হবে বলে জানান তিনি। একই সঙ্গে নির্মলা সীতারমণ দাবি করেন, আগামী ৪ বছরে গঙ্গায় পণ্য পরিবহন ৪ গুণ বাড়বে। নদী সংযুক্তিকরণের মাধ্যমে আমূল পরিবর্তন আসবে পণ্য পরিবহনে। এরফলে পণ্য পরিবহনের খরচ অনেক কমবে। পণ্য পরিবহনের সমস্ত খরচ এবার থেকে একটি কার্ডেই হবে বলে বাজেটে ঘোষণা করেন অর্থমন্ত্রী। জানান, ICMB কার্ডের মাধ্যমে গোটা দেশে মেট্রো, সড়ক ও জলপথে পরিবহনের খরচ বহন করা যাবে। সাধারণ মানুষ এই কার্ডের মাধ্যমে টোল ট্যাক্সও দিতে হবে না বলে জানান দেশের প্রথম মহিলা অর্থমন্ত্রী।

পপ্রশ্ন অনেক: চতুর্থ পর্ব

বর্ণ বৈষম্য নিয়ে যে প্রশ্ন, তার সমাধান কী শুধুই মাঝে মাঝে কিছু প্রতিবাদ