কলকাতা: তিনি অসুস্থ৷ বহুদিন যান না আলিমুদ্দিনে দলের সদর দফতরে৷ তবে দলের কর্মী, সমর্থকদের মনে তাঁর প্রতি ভালোবাসা অম্লান৷ তিনি বামেদের স্টার ক্যাম্পেনার রাজ্যের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী বুদ্ধদেব ভট্টাচার্য৷ কিছুক্ষণের জন্য হলেও বুদ্ধবাবুকে ব্রিগেডে হাজির করানোর মরিয়া চেষ্টা করছেন সিপিএম নেতৃত্ব৷

তিন বছর পর বামেদের ব্রিগেড৷ অস্তিত্ব প্রমাণের লড়াই৷ সেই জমায়েতে থাকবেন না বুদ্ধদেব ভট্টাচার্য৷ শোনা যাবে না তাঁর বার্তা৷ মেনে নিতে পারছেন না বামপন্থীরা৷ তাই চিকিৎসকের পরামর্শ নিয়েই সভার মঞ্চে নিয়ে আসার চেষ্টা চলছে প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রীকে৷ জানালেন সিপিএমের রাজ্য সম্পাদক মণ্ডলীর সদস্য রবীন দেব৷ এক্ষেত্রে চিকিৎসকের পরামর্শ অক্ষরে অক্ষরে মানা হবে বলেও জানান তিনি৷

আরও পড়ুন: নির্বাচনের আগে মোদীর হাত ধরে শুরু ‘ভারত কে মন কি বাত’

ব্রিগেড কী ভরবে? বারংবার এই প্রশ্নের সম্মুখীন হতে হয় বাম নেতাদের৷ কে হবেন স্টার ক্যাম্পেনার? অস্তিত্বরক্ষার ব্রিগেডের আগে নাম উঠে আসে শাবনা আজমি, প্রকাশ রাজের৷ পরে জানা যায় তাঁরা আসতে পারবেন না৷ এই পরিস্থিতিতে সিপিআই ছাত্রনেতা কানহাইয়া কুমারকে সামনে রেখে ব্রিগেড জমানোর ডাক দেওয়া হয়৷ এদিন সকালে অবশ্য সংবাদ সংস্থা পিটিআই জানায় অসুস্থতার কারণে ব্রিগেডে উপস্থিত থাকতে পারবেন না কানহাইয়া৷

আর্কাইভ

তাহলে উপায় কী? সীতারাম ইয়েচুরি, সূর্যকান্ত মিশ্র, দীপঙ্কর ভট্টাচার্যের ভাষণ শুনতে কী দীর্ঘক্ষণ বসে থাকবেন কর্মীরা? বিভ্রান্ত এরাজ্যের বাম নেতারা৷ এই পরিস্থিতিতে তাই বুদ্ধদেব ভট্টাচার্যকে এনেই বাজি মাতের চেষ্টায় সিপিএম সহ বাম নেতৃত্ব৷ রবীন দেবের কথা ছড়িয়ে পড়েছে ব্রিগেডের মাঠে৷ জনতার মুখে শোনা যাচ্ছে আসছেন বুদ্ধবাবু৷ তাঁর বার্তা মেনেই তো ঠিক হবে আগামীর পথ-চলা৷

Proshno Onek II First Episode II Kolorob TV