লখনউ: বুয়া-বাবুয়ার জোট হলেও উত্তর প্রদেশে সেই জোটে সামিল হয়নি কংগ্রেস। রাহুল গান্ধীর নেতৃত্বে বিজেপিকে রুখতে একলা চলার পথেই ভর করে এগোচ্ছে ভারতের সর্বাপেক্ষা প্রাচীন রাজনৈতিক দল। ভোটের পরে জোট হওয়ার সম্ভাবনার রাস্তা অবশ্য খুলে রেখেছে সব পক্ষ।

এই অবস্থায় কংগ্রেস প্রদেশ কমিটির নেতাকে অত্যন্ত কুরুচীকর ভাষায় আক্রমণ করে বসলেন বিএসপি প্রার্থী গুড্ডু পণ্ডিত। উত্তর প্রদেশের প্রদেশ কংগ্রেস কমিটির সদস্য রাজ বব্বর এবং তাঁর অনুগামীদের জুতো পেটা করার হুমকি দিয়েছেন তিনি। যার জেরে তীব্র বিতর্কের সৃষ্টি হয়েছে উত্তর প্রদেশে।

 

সোমবার ফতেপুর সিকরি এলাকায় নির্বাচনী প্রচারে হাজির ছিলেন গুড্ডু। দলীয় কর্মীদের মাঝে বক্তব্য রাখার সময়ে তিনি বলেন, “রাজ বব্বরের কুকুরেও শুনে রাখ, তোদের আর তোদের নাচানিয়া নেতাকে জুতো পেটা করব।” কংগ্রেস নেতা রাজ বব্বর মিথ্যা প্রচার করছেন বলে অভিযোগ করেছেন বিএসপি নেতা গুড্ডু। যার কারণে সমাজে মারাত্মক কুপ্রভাব পরছে। তাই হুমকি দিয়ে গুড্ডু আরও বলেছেন, “গঙ্গা মায়ের দিব্যি দিয়ে বলছি, রাজ বব্বর এবং তার দালালদের যেখানে পাবো সেখানেই ফেলে জুতো পেটা করব।”

সপ্তদশ লোকসভা নির্বাচনে জোট বদ্ধ হয়ে লড়াই করছে সপা এবং বিএসপি। যুযুধান এই দুই পক্ষের শীর্ষ নেতানেত্রী যোউথ সাংবাদিক সম্মেলন করে জোট ঘোষণা করেন। কংগ্রেসকে জোটে আহ্বান জানান হলেও সাড়া দেয়নি হাত শিবির। সেই সময় থেকেই বিরোধ স্পষ্ট হলেও তা একটা প্রকত হয়নি। সোমবার যা খুব স্পষ্ঠভাষায় উল্লেখ করে দিয়েছেন বিএসপি নেতা গুড্ডু পণ্ডিত।

বিরোধী বিএসপি প্রার্থীর বক্তব্যের জবাব দিয়েছেন কংগ্রেস নেতা রাজ বব্বর। তিনি বলেছেন, “ওনার(গুড্ডু) বাবা-মা নিশ্চই ওনাকে শিক্ষাদীক্ষা দিয়েছেন। কিন্তু সেটা ওনার কানে যায়নি। সেই কারণেই ওনার জানা নেই রাজ বব্বর কে?”

রাজ বাব্বর উত্তরপ্রদেশের তুন্দলায় জন্মগ্রহণকারী বিখ্যাত হিন্দি ও পাঞ্জাবি চলচ্চিত্র অভিনেতা এবং বিশিষ্ট রাজনীতিবিদ। ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেসের সক্রিয় সদস্য তিনি। লোকসভায় তিনবার সংসদ সদস্যরূপে দলীয় প্রতিনিধিত্ব করেন। ভারতীয় সংসদের উচ্চকক্ষ হিসেবে পরিচিত রাজ্যসভায়ও দুইবার নির্বাচিত সংসদ সদস্য ছিলেন তিনি। রাজনৈতিক জীবনের শুরুতে তিনি সমাজবাদী পার্টির সঙ্গে ছিলেন। ওই পার্টির হয়েই সাংসদ হয়েছিলেন, পরে কংগ্রেস যোগ দেন। গত লোকসভা নির্বাচনে কংগ্রেসের টিকিটে লড়াই করলেও জিততে পারেননি।