নয়াদিল্লি: যেই কর্মী ইউনিয়ন বেতন দেরি হচ্ছে বলে আগামী শুক্রবার ধর্মঘটের হুমকি দিল সেই রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থা ভারত সঞ্চার নিগম লিমিটেড (বিএসএনএল) কর্তৃপক্ষ প্রতিশ্রুতি দিল ১.৭৮ লক্ষ কর্মীর সেপ্টেম্বর মাসের বেতন দেওয়ালির আগেই দেওয়া হবে৷

বিএসএনএল চেয়ারম্যান অ্যান্ড ম্যানেজিং ডিরেক্টর পি কে পুরওয়ার সংবাদ সংস্থা আইএএনএস-কে জানিয়েছেন, তারা কর্মীদের বেতন দেওয়ালির আগেই দিয়ে দেবেন৷ পরিষেবা দিয়ে মাসে ১৬০০ কোটি টাকা আয় হয়েছে বলে তিনি দাবি করেন৷

বেতন বাবদ প্রতি মাসে বিএসএনএল দিতে হয় ৮৫০ কোটি টাকা৷ তবে পরিষেবা দিয়ে ১৬০০ কোটি টাকা আয় হলেও তা যথেষ্ঠ নয় কারণ এর বেশির ভাগটাই খরচ হয় বেশ কিছু দায় মেটাতে এবং কাজ চালাতে বলে সূ্ত্রের খবর৷ পাশাপাশি রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থাটি সরকারি গ্যারান্টিতে ব্যাংকের কাছ থেকে টাকা তুলছে যা কিছুটা এবার পাবে৷ তাছাড়া ভেন্ডারদের পাওনা মেটাতে হয়৷

এই টেলিকম সংস্থাটির ২০১৯ সালে শেষ হওয়া অর্থবর্ষে ১৩,৮০৪ কোটি ক্ষতি হয়েছে ৷ ফোর-জি স্পেকট্রাম চালু করা এবং স্বেচ্ছা অবসরের মাধ্যমে কর্মী ছাঁটাই করে আর্থিক দায় কমাতে চায় ৷ তবে তা করতে কিছুটা সময় লাগবে যদিও তা আছে সরকারের অগ্রাধিকার তালিকায় বলে জানান পুরওয়ার৷ অর্থমন্ত্রক এবং পিএমও এখন ৫০,০০০ কোটি টাকা মূলধনের যোগান দিয়ে বিএসএনএল এবং এমটিএনএল চাঙ্গা করতে চাইছে৷