নয়াদিল্লি: শান্তি এবং সমৃদ্ধশালী রাষ্ট্র হতে চাইলে ব্রিটেনের উচিত ভারতের শাসনে চলে আসা। কারণ কাশ্মীর থেকে কন্যাকুমারী পর্যন্ত বিস্তীর্ণ অংশে নানা ভাষা, নানা মত, নানা পরিধানের মাঝে মহান মিলন রয়েছে। এই পদ্ধতিতেই উন্নতি পেতে পারে রানির দেশ। এহেন মন্তব্য কোন ভারতীয় বা প্রবাসী ভারতীয় করেননি। নিজের ফেসবুক ওয়ালে এহেন প্রত্যাশার কথা জানিয়েছেন দিল্লিবাসী ব্রিটিশ নাগরিক নিক বুকার।

ইউরোপিয়ান ইউনিয়ন থেকে ব্রিটেন বেরিয়ে যাওয়ার পর যে সকল ব্রিটিশের মন খারাপ হয়েছে তাঁদের উদ্দেশ্যেই মূলত এই পোস্ট করেছেন নিক বুকার। তিনি মনে করেন, “ক্যামেরনের উচিত এখনই আবেদন করা যাতে ব্রিটেন ভারতীয় প্রজাতন্ত্রের একটি কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল হয়ে উঠতে পারে। ঐতিহাসিক ভাবে চিন্তা করা হলে, কয়েকশো বছর ব্রিটেনকে নিজেদের শাসনে রাখার অধিকার ভারতীয়দেরও পাওয়া উচিত। ব্রিটেনের মানুষের কাছেও বিষয়টি যথেষ্ট অর্থবহ।” বহু ভাষা ও সংস্কৃতির দেশ ভারতের অধীনে থাকলে ব্রিটেনবাসীরা যে নানাবিধ সুযোগ সুবিধা পাবেন তাও ব্যাখ্যা করে বুঝিয়ে দিয়েছেন নিক। তাঁর কথায়, “ভারতের আর্থিক বৃদ্ধির হার সমগ্র ইউরোপের থেকে চার গুণ বেশি। আগামী ১৫বছরের মধ্যে ভারতের অর্থনীতি সমগ্র ইউরোপের অর্থনীতির থেকে বড় হয়ে যাবে। ২০৫০সালের মধ্যে ইউরোপীয় অর্থব্যবস্থার দ্বিগুণ হয়ে যাবে ভারতের অর্থব্যবস্থা।”

পপ্রশ্ন অনেক: চতুর্থ পর্ব

বর্ণ বৈষম্য নিয়ে যে প্রশ্ন, তার সমাধান কী শুধুই মাঝে মাঝে কিছু প্রতিবাদ