টোকিও: করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ছড়য়ে পড়া রুখতে এবার জরুরি অবস্থা ঘোষণার পথে জাপান সরকার। সম্ভবত মঙ্গলবারই জাপান সরকারের তরফে জরুরি অবস্থা ঘোষণা করা হতে পারে বলে সংসবাদসংস্থা সূত্রে জানা গিয়েছে। জানা গিয়েছে, করেনাার আক্রমণের জেরে দেশে অর্থনৈতিক মন্দা এড়ানোর জন্য ইতিমধ্যেই একটি বিশেষ প্যাকেজ তৈরি করেছে জাপান সরকার।

গোটা বিশ্ব করোনা ফলায় বিদ্ধ। করোনার করাল গ্রাস জাপানেও। ইতিমধ্যেই জাপানের সাড়ে ৩ হাজারেরও বেশি মানুষ মারণ এই ভাইরাসের সংক্রমণের শিকার হয়েছেন। কোভিড-19 এ আক্রান্ত হয়ে ইতিমধ্যেই জাপানে ৮৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। জাপানের রাজধানী টোকিওতে ব্যাপক হারে করোনার সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়েছে। মারণ ভাইরাসের সংক্রমণ এড়াতে ইতিমধ্যেই টোকিওতে একাধিক সতর্কতামূলক পদক্ষেপ করেছে সরকার। জানা গিয়েছে, শুধু টোকিওতেই ইতিমধ্যে হাজারেরও বেশি মানুষ করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। আর এর ফলেই টোকিওতে হতে চলা ২০২০ অলিম্পিক৷

জাপানের একটি সংবাদসংস্থা সূত্রে জানা গিয়েছে, সব কিছু ঠিক থাকলে মঙ্গলবারই জরুরি অবস্থা ঘোষণা করতে পারেন প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবে। জরুরি অবস্থা ঘোষণার পর বুধবার সতর্কতামূলক ব্যবস্থা হিসেবে আরও কী কী পদক্ষেপ করবে সরকার, সেবিষয়ে বিস্তারিত তথ্য দেশবাসীকে জানাতে পারেন জাপানের প্রধানমন্ত্রী।

জানা গিয়েছে, বিশ্বের অন্যান্য দেশের পথে হেঁটে গোটা দেশেই লকডাউন ঘোষণার পথে যাবেন না প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবে। সাধারণ মানুষকে করোনার সংক্রমণ সম্পর্কে আরও সচেতন করা হবে। প্রথমত মানুষকে বাইরে না বেরিয়ে বাড়িতে থাকার আবেদন জানানো হবে। সমস্ত বাণিজ্যিক কাজকর্ম বন্ধ করা হবে। করোনার সংক্রমণ রুখতে কী কী করণীয় ইতিমধ্যেই সেদেশে সে সম্পর্কে মানুষকে সচেতন করার কাজ চালিয়ে যাচ্ছে সরকার।

এবার মঙ্গলবার জরুরি অবস্থা ঘোষণার পর করোনার সংক্রমণ রুখতে জাপানেও সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার পরামর্শ দেওয়া হবে। ভিড় বা জমায়েত এড়িয়ে চলতে ইতিমধ্যেই জাপানে বেশ কিছু বিধিনিষেদ জারি করা হয়েছে। তবে এখনও পর্যন্ত লকডাউন না হওয়ায় অনেকেই সরকারি বিধিনিষেধ মেনে চলছেন না। বিশেষজ্ঞদের মতে, সেই কারণেই জাপানেও ক্রমেই ছড়াচ্ছে মারণ করোনার সংক্রমণ।

তবে বিশেষজ্ঞদের মতে, প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবে জরুরি অবস্থা ঘোষণা করলে, সেদেশের চিত্রটাও বদলাতে বাধ্য। করোনা ভাইরাসের আক্রমণের জেরে জাপানে অর্থনৈতিক মন্দার পরিবেশ তৈরি হয়েছে। ইতিমধ্যেই মন্দার হাত থেকে বাঁচতে ব্লুপ্রিন্ট তৈরি করেছে জাপান সরকার। অর্থনৈতিক মন্দা এড়াতে একশো বিলিয়ন ডলারের বিশেষ প্যাকেজের ঘোষণা সম্ভবত চলতি সপ্তাহেই ঘোষণা করতে পারেন জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবে।