শ্রীনগর: সাতসকালে জম্মু কাশ্মীরে শুরু এনকাউন্টার। সেনা জঙ্গি গুলির লড়াইয়ে শহিদ হয়েছেন এক জওয়ান, আহত হয়েছেন আরও অপর ২ জন। পুলিশ জানাচ্ছে, এনকাউন্টারে নিকেশ করা হয়েছে এক জঙ্গিকেও। কাশ্মীরের পুলওয়ামায় চলছে এই এনকাউন্টার।

পুলিশ সূত্রে খবর মঙ্গলবার ভোর সাড়ে ৫ টা নাগাদ সিআরপিএফ ১৮৩ ব্যাটেলিয়ান, আর্মির রাষ্ট্রীয় রাইফেলস ও জম্মু কাশ্মীর পুলিশ এই অপারেশন শুরু করে। জানা গিয়েছে, এক জওয়ান ও এক পুলিশ সদস্য জঙ্গিদের ছোঁড়া গুলিতে আহতও হয়েছেন।

পর পর দুটি পোস্টে জম্মু কাশ্মীর পুলিশ জানিয়েছে, পুলওয়ামার গোসু এলাকায় এনকাউন্টার চলছে। পরের পোস্টে জঙ্গি নিকেশ হওয়ার খবর জানা যায়।

এর আগে রবিবার জম্মু কাশ্মীরের কুলগামে তল্লাশি চালিয়ে দুই জঙ্গিকে খতম করে সেনা। প্রথম জঙ্গিকে নিকেশ করার পরে ফের তল্লাশি শুরু করে সেনা। দ্বিতীয় জঙ্গির পরিবারের লোকেরা আত্মসমর্পণের অনুরোধ করলেও, সে শোনেনি। পরে তাকেও সেনার গুলিতে প্রাণ হারাতে হয় বলে খবর।

শনিবার সকালে গুলির লড়াই চলাকালীন এক জঙ্গি খতম হয়। তিন সেনা জওয়ান আহত হন। তবে তাঁদের প্রাথমিক চিকিৎসার পরে ছেড়ে দেওয়া হয়। গোটা এলাকা ঘিরে ফেলে তল্লাশি শুরু করে সেনার যৌথ বাহিনী। গোপন সূত্রে খবর পেয়েই দক্ষিণ কাশ্মীরের কুলগামে এই তল্লাশি অভিযান চালায় সেনা।

লাদাখে চিনের সঙ্গে লাইন অফ অ্যাকচুয়াল কন্ট্রোলে সংঘর্ষের মাঝেই পাকিস্তানের সঙ্গে আন্তর্জাতিক সীমানায় নজরদারি বাড়িয়েছে সীমান্ত রক্ষা বাহিনী। পাকিস্তানকে রুখতে বদ্ধপরিকর বর্ডার সিকিউরিটি ফোর্স।

পপ্রশ্ন অনেক: চতুর্থ পর্ব

বর্ণ বৈষম্য নিয়ে যে প্রশ্ন, তার সমাধান কী শুধুই মাঝে মাঝে কিছু প্রতিবাদ