শ্রীনগর: ফের যুদ্ধবিরতি চুক্তি লঙ্ঘন করল পাকিস্তান। রবিবার সকাল ৮ টা ৪০ নাগাদ জম্মু কাশ্মীরের পুঞ্চ জেলায় গুলি ছুঁড়ে হামলা চালায় পাকিস্তানি সেনা।

কোনও প্ররোচনা ছাড়াই হঠাৎই এই গুলি চালায় পাকিস্তান, ফলে একপ্রকার বাধ্য হয়েই পালটা গুলি চালায় ভারতীয় সেনারাও। এখনও গুলি বর্ষণ চলছে বলে জানা গিয়েছে।

এর আগে ৯ মে তারিখেও জম্মু ও কাশ্মীরের পুঞ্চ জেলায় নিয়ন্ত্রণ রেখা (এলওসি) বরাবর যুদ্ধবিরতি লঙ্ঘন করেছিল পাকিস্তানি সেনারা। সেদিন সন্ধ্যে সাড়ে ৭ টা নাগাদ পাকিস্তান সেনাবাহিনী দেগওয়ার সেক্টরে এলওসি বরাবর মর্টার হামলা চালায় ও সঙ্গে চলে গুলি বর্ষণ। ভারতীয় সেনার তরফে পালটা জবাব দিতেই গুলি চালানো বন্ধ হয়।

লকডাউনের মধ্যে গোটা দেশ কার্যত স্তব্ধ থাকলেও কাশ্মীরে পাক উৎপাতের বিরাম নেই। মাঝেমধ্যেই বিনা প্ররোচনায় হামলা চালাচ্ছে পাকিস্তানি সেনারা। আবার অন্য দিকে ভূ-স্বর্গে জঙ্গি দমনেও ভারতীয় সেনাকে কড়া হতে হছে। নিয়মিত ভাবে এনকাউন্টার চলছে সেনা ও জঙ্গি বাহিনীর।

শনিবারও নিরাপত্তা রক্ষীদের হাতে গ্রেফতার হয় লস্কর-ই-তৈবার শীর্ষস্থানীয় জঙ্গি জাহুর ওয়ানি। বুদগাম জেলার আরিজাল খানসাহিব এলাকায় একটি আস্তানা থেকে গ্রেফতার করা হয় তাঁকে। জাহুর ওয়ানির থেকে অস্ত্র ও গুলিও উদ্ধার করা হয়েছে। জম্মু ও কাশ্মীর পুলিশ তার বিরুদ্ধে একটি মামলাও দায়ের করে।

উল্লেখ্য, চলতি মাসেই সেনার সঙ্গে গুলির লড়াইয়ে খতম হয় হিজবুল কমান্ডার রিয়াজ নাইকু। মাত্র দিন দশেক আগে সেনা-জঙ্গি গুলির লড়াইইয়ে নিকেশ হয় ‘মোস্ট ওয়ান্টেড’ রিয়াজ নাইকু। তাঁর মাথার দাম ছিল ১২ লক্ষ টাকা।

পপ্রশ্ন অনেক: চতুর্থ পর্ব

বর্ণ বৈষম্য নিয়ে যে প্রশ্ন, তার সমাধান কী শুধুই মাঝে মাঝে কিছু প্রতিবাদ