ঢাকাঃ  ভারতের লোকসভা নির্বাচনকে গণতন্ত্রের সফলতা হিসেবে দেখছে বিএনপি। ভারতের সাধারণ নির্বাচনের ফল ঘোষণার পর এমনটাই জানিয়েছেন স্থায়ী কমিটির সদস্য আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী। তিনি সাংবাদিকদের প্রশ্নে বলেন, “ভারতের লোকসভা নির্বাচনে সবচেয়ে ভালো দিক হচ্ছে যে, সে দেশের জনসাধারণ ভোটের মাধ্যমে তাদের প্রতিনিধি নির্বাচন করতে পেরেছে, যেটা বাংলাদেশের জনগণ পারে নাই।

শুধু তিনি বলেন, এটা হচ্ছে সব চেয়ে পজিটিভ দিক। ভারতের জনগণ ভোটের মাধ্যমে তাদের প্রতিনিধি নির্বাচন করতে সক্ষম হয়েছে, গণতন্ত্র সফল হয়েছে। তাদের মৌলিক অধিকার, সাংবিধানিক অধিকার, ভোটাধিকার প্রয়োগের মাধ্যমে গণতন্ত্রকে আরও বেশি মজবুত করেছে, শক্তিশালী করেছে বলে আমি মনে করি।”

বাংলাদেশে আওয়ামী লীগের ক্ষমতায় থাকার পিছনে প্রতিবেশী দেশ ভারতের সমর্থন রয়েছে বলে বরাবরই দাবি করে আসছে বিএনপি। তবে গত কয়েক বছরে বিএনপির ভারতবিরোধিতার অবস্থানের বদল দেখা গিয়েছে। দেশের শাসকদের সঙ্গে সম্পর্কোন্নয়নের লক্ষ্যে বছর খানেক আগে বিএনপির কয়েকজন নেতা ভারত সফর করে আসেন, যার নেতৃত্বে ছিলেন আমীর খসরু।

তিনি বলেন, “ভারতের সাথে বাংলাদেশের সম্পর্ক অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। এই সম্পর্ক হবে দুই দেশের স্বার্থে, জনগণের স্বার্থে, জনগণের মধ্যে হতে হবে।” ভারতে বিজেপি গতবারের চেয়ে বেশি আসন নিয়ে জয়ী হয়েছে। ফলে নরেন্দ্র মোদী আরও শক্তিশালী হয়ে দেশটির ক্ষমতায় টিকে থাকছেন। মোদীর বিজয়ের প্রতিক্রিয়ায় আমীর খসরু বলেন, “মোদী সাহেব জনগণের ভোটে জিতেছেন। জনগণ উনার পক্ষে রায় দিয়েছেন।” বিএনপির পক্ষ থেকে মোদীকে অভিনন্দন জানানোর কথা জানিয়ে তিনি বলেন, “বিএনপি পক্ষ থেকে দলের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান ইতোমধ্যে অভিনন্দন জানিয়েছে। সেই চিঠি ভারতীয় হাই কমিশনের কাছে আজ-কালের মধ্যে চলে যাবে।”