স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা: বিধানসভায় ঢুকে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে বিজেপিতে স্বাগত জানালেন মুকুল রায়৷ শুক্রবার তিনি বলেন, “পার্টির নীতি, আদর্শ মেনে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ও যদি বলেন, আমি ভারতীয় জনতা পার্টি করব। তাহলে আমার ধারণা, কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব তাঁকে সমর্থন করবে।”

শুক্রবার অধিবেশন চলার সময় বিধানসভায় ঢোকেন মুকুল রায়৷ প্রায় দু’বছর পর বিধানসভায় এলেন তিনি৷ প্রথমে পুরনো পরিচিতদের সঙ্গে কথাবার্তা বলার পর তিনি সোজা চলে যান বিজেপির বিধায়কদের পরিষদীয় দলের ঘরে৷ সেখানে উপস্থিত দলের বিধায়কদের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন৷ এদিন মুকুল রায় যখন বিধানসভায় ঢোকেন তখন গণপিটুনি প্রতিরোধ বিলের উপর বক্তব্য রাখছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷

আরও পড়ুন : দুষ্কৃতীদের পরের টার্গেট তিনি, আশংকায় বিজেপি বিধায়ক সুনীল সিং

এরপরই মুকুল রায় বলেন, “বিজেপির নীতি-আদর্শ মেনে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ও যদি বিজেপিতে আসতে চান, তবে তাঁর জন্যও দরজা খোলা৷ বিজেপি একটা বৃহত্তর রাজনৈতিক দল৷ এখানে অনেকে আসবে, অনেকে যাবে৷ বিজেপি একটা সমুদ্র৷ সবাই এখানে স্নান করতে চাইছে৷ এর সদস্য হতে চাইছে৷ মুখ্যমন্ত্রী আসতে চাইলেও, আমার মনে হয় কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব কোনও সময়ই আপত্তি করবে না৷ তাঁকেও দলে স্বাগত জানাবে৷”

মুকুল রায়ের এই মন্তব্যের পরই পাল্টা প্রশ্ন করা হয় তাঁকে। যাঁর বিরুদ্ধে রাজ্যে বিজেপির লড়াই, তাঁকেই দলে আমন্ত্রণ? সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তরে মুকুল রায় বলেন, মমতাকে আসতে হলে বিজেপির নিয়ম, নীতি, আদর্শ মেনে যোগদানের করতে হবে।

আরও পড়ুন : ‘দিদিকে বলো’ ক্যাম্পেন: সোমবার সাংসদদের নতুন অ্যাসাইমেন্ট দিতে পারেন মমতা

মুকুল রায় এদিন আরও বলেন, “এই সরকার কদিন থাকে? দেখুন! মন্ত্রীরা কী বলছেন? খোঁজ নিন।” তাঁর কথায়, তৃণমূলের অনেক বিধায়ক-মন্ত্রী তলে তলে যোগাযোগ করছেন। কতদিন এই সরকার টেকে এটাই এখন দেখার বিষয়। যাঁরা বিজেপিতে আসতে চান, তাঁদেরকে স্বাগত।