কলকাতা:  রাজনৈতিক মহলের অনুমান ছিল এবার চমক দেবে বাংলা। হচ্ছেও তাই। বেলা বাড়তেই বিজেপির যে ট্রেন্ড দেখা যাচ্ছে, তা সত্যিই চমকপ্রদ। তৃণমুলের ৪২-এ ৪২-এর আশায় জল ঢেলে একের পর এক আসনে এগিয়ে যাচ্ছে বিজেপি। সকাল ১১টা পর্যন্ত যা ট্রেন্ড তাতে ১৬টি আসনে এগিয়ে রয়েছে বিজেপি। আর ২৫টি আসনে এগিয়ে তৃণমূল। একাধিক এক্সিট পোলেই বোঝা গিয়েছিল এবার বাংলায় ১০-এর বেশি আসন পেতে পারে বিজেপি। যদিও দিলীপ ঘোষ দাবি করেছিলেন ২৩টি আসন পাবেন তাঁরা।

তবে আগামী কয়েক ঘন্টায় ভোটের পরিস্থিতি কি হতে পারে তা এখনও বলা যাচ্ছে না। ফলে দিলীপ ঘোষের কথা মিলে যাবে কিনা, তা এখনও স্পষ্ট নয়। তবে এটা স্পষ্ট তৃণমূলের সবকটি আসন জয়ের ক্ষেত্রে বড় বাধা হয়ে দাঁড়াতে পারে গেরুয়া শিবির।

সকাল থেকেই একের পর এক কেন্দ্রে এগিয়ে যেতে থাকে বিজেপি। আর এই ট্রেন্ড দেখার পরেই কলকাতায় বিজেপি দফতরে ভিড় বাড়ছে নেতা-কর্মীদের। একে একে বিজেপি দফতরে এসে উপস্থিত হচ্ছেন বিজেপির রাজ্যসভার সাংসদ রূপা গঙ্গোপাধ্যায় সহ একাধিক বিজেপির শীর্ষ নেতৃত্ব। পার্টি অফিসের বাইরে অকাল হোলির উৎসবে মেতেছেন বিজেপি কর্মীরা। সেণ্ট্রাল অ্যাভিনিউয়ের উপরেই চলছে চলছে। গেরুয়া আবিরে মেতেছেন কর্মীরা। চলছে লাড্ডু খাওয়ানো।

শুধু কলকাতার বিজেপির সদর দফতরেই নয়, রাজ্যের সর্বত্র উৎসবে মেতেছে বিজেপির কর্মীরা। দিল্লিতে বিজেপির হেড কোয়ার্টারেও ছবিটা এক। ধীরে ধীরে সেখানেও ভিড় বাড়ছে নেতা-কর্মীরা।

গত বার লোকসভা নির্বাচনে মাত্র ২টি আসনে জয়ী হয়েছিল বিজেপি।