কলকাতা: আগের থেকে অনেকটাই ভালো আছেন বিজেপির রাজ্যসভার সাংসদ রূপা গঙ্গোপাধ্যায়৷ চিকিৎসায় ঠিক মতো সাড়া দিচ্ছেন নেত্রী৷ গতকাল আচমকা অসুস্থ হয়ে পড়ে তিনি৷ এরপরে তাঁকে সল্টলেকের এক বেসরকারি হাসপাতালে ভরতি করা হয়৷তারপর থেকে সেখানেই রয়েছেন তিনি৷ রূপার চিকিৎসার জন্য মেডিক্যাল বোর্ড গঠন করেছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ৷ হাসপাতাল সূত্রে খবর৷গতকালের পর আর কোনও রকম রক্তক্ষরণ হয়নি৷বাম চোখ দিয়ে যে দেখতে অসুবিধা হচ্ছিল তা এখন অনেকটাই স্বাভাবিক হয়েছে৷তবে ঠিক কি কারণে এমনটা ঘটল তা জানার জন্য বেশ কয়েকটি পরীক্ষা করা করা হয়েছে৷ বাকি রয়েছে আরও কয়েকটি৷ আগামীকাল বিজেপি সাংসদের সিটি স্ক্যান করা হবে বলেও জানিয়েছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ৷

roopa

গতকাল হঠাৎ নাক দিয়ে রক্ত বেরোতে শুরু করে রূপার৷ বাম চোখ দিয়ে ঠিকমতো দেখতে পারছিলেন না তিনি৷ এরপরেই তাঁকে হাসপাতালে ভরতি করেন দলের অন্যান্য নেতা-কর্মীরা৷ এদিন দলের একমাত্র মহিলা সাংসদকে দেখতে যান বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ৷ সেখানে বেশ কিছুক্ষণ কথা বলেন তাঁর সঙ্গে৷ এদিন কলকাতা ২৪ x৭কে দিলীপ বাবু জানান, ভালো আছেন রূপা৷

লাল-নীল-গেরুয়া...! 'রঙ' ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা 'খাচ্ছে'? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম 'সংবাদ'! 'ব্রেকিং' আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের। কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে 'রঙ' লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে 'ফেক' তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই 'ফ্রি' নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.

করোনা পরিস্থিতির জন্য থিয়েটার জগতের অবস্থা কঠিন। আগামীর জন্য পরিকল্পনাটাই বা কী? জানাবেন মাসুম রেজা ও তূর্ণা দাশ।