স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা: মহালয়ার দিন রাজ্যে আসবেন বিজেপির কার্যকরী সভাপতি জে পি নাড্ডা। বিজেপির যেসব কর্মীরা রাজনৈতিক সন্ত্রাসে নিহত হয়েছেন তাঁদের উদ্দেশ্যে গঙ্গায় তর্পণ করবেন জে পি নাড্ডা।

পঞ্চায়েত নির্বাচনের অনেক আগে থেকেই বাংলায় রাজনৈতিক সন্ত্রাসে বিজেপি কর্মীরা নিহত হয়েছেন। নিহত বিজেপি কর্মীদের তালিকা তৈরি হয়েছে। তা কেন্দ্রীয় পার্টির মাধ্যমে একাধিকবার পৌঁছে গিয়েছে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকে। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী এবং বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি অমিত শাহ ( বর্তমানে দেশের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীও) পশ্চিমবঙ্গে এসে বারবার বিষয়টি নিয়ে নিজেদের বক্তব্যে সরব হয়েছেন। লোকসভা নির্বাচনের পর বিজেপিতে রাজনৈতিক সন্ত্রাসে নিহতের সংখ্যা (অভিযোগ অনুসারে) ৮০ এরও বেশি। মহালয়ার দিন কলকাতায় এসে তাঁদের আত্মার শান্তি কামনা করবেন নাড্ডা।

এখানে অন্য একটি বিষয়ও যথেষ্ঠ প্রাসঙ্গিক। মহালয়ায় পিতৃতর্পণ হিন্দু ধর্মের একটি উজ্জ্বল আচার। পূর্ব পুরুষদের জল দেওয়ার এই কাজ প্রাচীনকাল থেকেই চলছে। সেক্ষেত্রে, বিজেপির কার্যকরী সভাপতি নাড্ডা এবং রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষের এই ফ্রেম রাজ্যের সংখ্যাগুরু হিন্দু ভোট ব্যাংককে উষ্ণ বার্তা দেবে। রাজ্য বিজেপির শীর্ষ নেতৃত্ব মনে করছে, রাজ্যে জে পি নাড্ডার প্রথম ইনিংস এর থেকে ভালো ভাবে আর শুরু হতে পারে না।

তুখড় সংগঠন ‘জেপি’ বিজেপির কার্যকরি সভাপতি হিসাবে এই প্রথম কলকাতায় আসছেন৷ শোনা যাচ্ছে, তিনি বেশ কয়েকটি সাংগঠনিক সভা করবেন৷ সেগুলি অন্তর্দলীয় সভা৷ বন্ধ দরজার ভিতরে কী হবে তা দলের সাধারণ কর্মীরা জানতে পারবেন না৷ তবে সাধারণ কর্মীদের জন্য শহরের কোনও বড় প্রেক্ষাগৃহে 370 বিষয়ে সেমিনার আয়োজন করা হতে পারে৷ যা খবর, বিস্তারক কর্মসূচি শেষ হয়ে যাওয়ার পর রাজ্যে পার্টির কী অবস্থা তা খতিয়ে দেখবেন তিনি৷ দেখবেন সদস্যতা অভিযানের ফল কতটা পাওয়া গিয়েছে৷