কলকাতাঃ  বড় ধাক্কা বিজেপির। ছেড়ে যাওয়া বিজেপি কাউন্সিলরদের ফের ‘ঘর-ওয়াপসি’ তৃণমূলের।

নৈহাটি পুরসভার ১০ জন কাউন্সিলর এবং গারুলিয়া পুরসভার দু’জন কাউন্সিলরের ঘর ওয়াপসি। ফিরে এলেন তৃণমূলে। তৃণমূল ভবনে ফিরহাদ হাকিম বিজেপি ছেড়ে আসা কর্মীদের হাতে দলীয় পতাকা তুলে দেন। বিজেপি ভয়-ভীতি প্রদর্শন করে তাদেরকে জোর করে বিজেপিতে নিয়ে গিয়েছিল, দলবদল শেষে এমনটাই বিস্ফোরক অভিযোগ করেন ফিরহাদ হাকিম।

লোকসভা নির্বাচনের ফলাফল ঘোষণা হওয়ার পর বারাকপুর শিল্পাঞ্চলে তৃণমূলের ভাঙন প্রকট হয়ে উঠেছিল। নৈহাটি, কাঁচরাপাড়া, হালিশহর, ভাটপাড়া, নোয়াপাড়া সহ বেশ কয়েকটি পুরসভার বহু তৃণমূল কাউন্সিলর দলবদল করে বিজেপিতে যোগ দিয়েছিলেন। সেইসব কাউন্সিলরদের বড় অংশই ফের পুরনো দলে ফিরে আসছেন। শনিবার তৃণমূল ভবনে নৈহাটি পুরসভার ১০ জন এবং নোয়াপাড়া পুরসভার দুজন কাউন্সিলর ফের তৃণমূল কংগ্রেসে ফিরলেন। তাদের দলে স্বাগত জানালেন রাজ্যের পুর ও নগর উন্নয়ন দফতরের মন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম।

এদিন সাংবাদিক সম্মেলনে ফিরহাদ হাকিম অভিযোগ করে বলেন, লোকসভা নির্বাচনে বারাকপুর লোকসভা কেন্দ্রটি বিজেপি দখল করার পর বিজেপি ওই এলাকায় সন্ত্রাস শুরু করেছিল। সেই সন্ত্রাসের কবলে পড়ে দলের অনেক কাউন্সিলরই দল বদল করতে বাধ্য হয়েছিলেন। ভয়-ভীতি প্রদর্শন করেও অনেক কাউন্সিলরকে দল ভাঙিয়ে নিয়ে যাওয়া হয়েছিল। কিন্তু তারা বুঝতে পেরেছেন তৃণমূলই তাদের আসল পরিবার। বাংলার সংস্কৃতির সঙ্গে খাপ খাওয়াতে পারছিলেন না তারা, আর সেই কারণেই মমতার দলে তাঁরা ফিরে এসেছেন বলে দাবি করেছেন মেয়র।

১০ জন কাউন্সিলর ফিরে আসায় এখন নৈহাটি পুরসভায় তৃণমূলের মোট কাউন্সিলর ২৩। অন্যদিকে, গারুলিয়া পুরসভায় দুজন কাউন্সিলর দলে ফিরে আসায় এখন তৃণমূলের কাউন্সিলর বেড়ে দাঁড়াল ১০। বারাকপুর শিল্পাঞ্চল এলাকায় বিজেপি এখনও সন্ত্রাস চালাচ্ছে বলে এদিনের সাংবাদিক সম্মেলনে অভিযোগ করেন ফিরহাদ হাকিম। তিনি এদিন আরও বলেন, যারা চলে গিয়েছিলেন তারা সবাই একে একে ফিরে আসছেন। কারোর মাথা খারাপ না হলে কেউই তৃণমূল ছেড়ে যাবেন না। যারা নতুন যাচ্ছেন তারাও ফিরে আসবেন বলে দাবি করেন।

শুধু কাউন্সিলরাই নন,এদিন বিজেপি যুব নেতা প্রদীপ চক্রবর্তী বিজেপি ছেড়ে তৃণমূলে যোগদান করেন। সিপিএম যুবনেতা প্রাঞ্জল গুহনিয়োগীও এদিন তৃণমূলে যোগদান করেন। রাজ্যের বেশ কয়েকটি পুরসভার মেয়াদ ইতিমধ্যেই শেষ হয়ে গিয়েছে। বিরোধী দলগুলোর পক্ষ থেকে ওই পুরসভা গুলিতে অবিলম্বে নির্বাচনের দাবি জানিয়ে আসছে। শনিবার ফিরহাদ হাকিম এপ্রসঙ্গে বলেন, মেয়াদ শেষ হওয়া পুরসভা গুলিতে একই সঙ্গে নির্বাচন হবে। আগামী বছর এই পুরসভাগুলির নির্বাচন হওয়ার ইঙ্গিত দেন তিনি।