স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা: পর পর রাজ্য বিজেপি নেতাদের হেনস্থা প্রতিবাদে আন্দোলনে নামছে বিজেপি৷ সোমবার থেকে শ্যামনগরে তিনদিনের জন্য অবস্থান বিক্ষোভে বসছে বিজেপি৷ এছাড়া প্রতিটি এসপি অফিস ঘেরাও করার কর্মসূচি নিয়েছে রাজ্য বিজেপি৷

রবিবার পার্টি অফিস দখল ঘিরে অগ্নিগর্ভ হয়ে উঠে জগদ্দল এলাকা৷ পুলিশ সার্কাস মোড়ে বিজেপির অবরোধ তুলতে গেলে ধুন্ধুমার কান্ড ঘটে৷ মাথা ফাটে বিজেপির সাংসদ অর্জুন সিংয়ের৷ ইঁটের আঘাতে আহত বেশ কয়েকজন পুলিশ কর্মীও৷ ঘটনাস্থলে মোতায়েন ছিল RAF৷ অভিযোগ, অর্জুন সিংয়ের বাড়ির সামনেও বোমাবাজি হয়৷ এরপরই তাঁর বাড়ি ঘেরাও করে রাখে পুলিশ৷ তবে তার বাড়িতে তল্লাশি চালানোর চেষ্টা চালানো হয় বলেও অভিযোগ৷

বিজেপি নেতা সায়ন্তন বসু জানান, দিকে দিকে আমাদের নেতা কর্মীরা আক্রান্ত হচ্ছেন৷ এর প্রতিবাদে সোমবার বারাকপুর লোকসভা এলাকায় বনধের ডাক দেওয়া হয়েছে৷ অন্যদিকে শ্যামনগরে তিনদিনের জন্য অবস্থান বিক্ষোভে বসবে বিজেপির নেতা ও কর্মীরা৷ এবং রাজ্যের প্রতিটি এসপি অফিস ঘেরাও করা হবে৷ তবে কোন জেলায় কখন এসপি অফিসে বিক্ষোভ দেখানো হবে, তা ঠিক করবে সেই জেলার বিজেপি নেতারা৷

এর আগে, আহত অর্জুন সিংকে ভাটপাড়া স্টেট জেনারেল হাসপাতালে ভরতি করা হয়৷ তবে প্রাথমিক চিকিৎসার পর তাঁকে স্থানান্তরিত করা হয়৷ বর্তমানে তিনি বাইপাসের কাছে একটি বেসরকারি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন৷ তাঁকে দেখতে হাসপাতালে যান বিজেপি নেতা মুকুল রায়৷