মেদিনীপুর: পশ্চিম মেদিনীপুর জেলায় ছ’টি পুর নির্বাচনে তৃনমূল সন্ত্রাস চালাচ্ছে বলে অভিযোগ তুলল জেলা বিজেপি। পুলিশের একাংশ তাদের মদত দিচ্ছে বলেও অভিযোগ জানানো হয়েছে। এই বিষয়ের প্রমাণ হিসাবে কয়েকদিন আগের সমবায় ব্যাঙ্কের নির্বাচনের কথা তুলে ধরা হয়েছে।
বিজেপির জেলা সভাপতি তুষার মুখোপাধ্যায় পুর নির্বাচনের ইস্তেহার প্রকাশ করে বলেন, ”মেদিনীপুর শহরে কোনোদিন ভোটে সন্ত্রাস কেউ দেখেনি। কিন্তু, কয়েকদিন আগের সমবায় ব্যাঙ্কের নির্বাচনে পুলিশ সামনে দাঁড়িয়ে মিডিয়াকে আটকে তৃনমূলকে ছাপ্পা মারার সুযোগ করে দিয়েছিল আর বুথের ভেতরে সন্ত্রাস ভয় দেখিয়ে তৃনমূলের মস্তান বাহিনী ভোট দিয়ে গেল।” এই সন্ত্রাস পুর ভোটেও জারি থাকবে বেল আশঙ্কা করছেন তাঁরা। কারণ এখনই ক্ষীরপাই,খড়ার ও চন্দ্রকোনা পুরসভা এলাকায় প্রার্থী কর্মীদের প্রচারে বেরাতে দেওয়া হচ্ছে না বলে অভিযোগ। এব্যাপারে পুলিশ সুপার ভারতী ঘোষকে লিখিত অভিযোগ জানানোর উদ্যোগ নিচ্ছে বিজেপি।

লাল-নীল-গেরুয়া...! 'রঙ' ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা 'খাচ্ছে'? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম 'সংবাদ'! 'ব্রেকিং' আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের। কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে 'রঙ' লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে 'ফেক' তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই 'ফ্রি' নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.

করোনা পরিস্থিতির জন্য থিয়েটার জগতের অবস্থা কঠিন। আগামীর জন্য পরিকল্পনাটাই বা কী? জানাবেন মাসুম রেজা ও তূর্ণা দাশ।