স্টাফ রিপোর্টার (বাঁকুড়া):  “পশ্চিমবঙ্গে বিজেপির দলীয় কর্মসূচির প্রচারের দায়িত্ব মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় নিজে দায়িত্ব নিয়েছেন”। বৃহস্পতিবার বাঁকুড়া শহরে দলীয় এক সভায় অংশ নিতে এসে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে এমনই দাবী করলেন বিজেপির রাজ্য সহ সভাপতি বিশ্বপ্রিয় রায়চৌধুরী।

তিনি আরও বলেন, বাংলায় গণতন্ত্র বাঁচাও রথযাত্রার প্রচার আমরা যতটা না করছি, তার তিনগুন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় তাঁর ভাইয়েদের নিয়ে করছেন। একই সঙ্গে তাঁর দাবী, এই রাজ্যে গণতন্ত্র বাঁচাও রথযাত্রা হবে। আগামী শুক্রবার পূর্ব নির্ধারিত কর্মসূচি অনুয়ায়ি কোচবিহার থেকেই এই যাত্রার সূচনা হবে বলে মন্তব্য তাঁর। একই সঙ্গে বিশ্বপ্রিয়বাবু আরও দাবি করেন যে, এই যাত্রা কারও পক্ষেই আটকানো সম্ভব নয়। কারণ এই যাত্রা ‘জনগণের যাত্রা’ বলেও দাবী তাঁর।

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের উত্তরে বিজেপির সহ-সভাপতি অভিযোগ করেন, যুব মোর্চার মোটর সাইকেল র‍্যালি আটকানোর চেষ্টা হয়েছিল। মারধর, কেস কাছারি করেও আটকানোর চেষ্টা হয়েছিল বলে অভিযোগ। কিন্তু এতদ কিছু করেও তা আটকানো সম্ভব হয়েনি বলে দাবি তাঁর। নির্ধারিত কর্মসূচি মোতাবেক সেই র‍্যালি সাগরে শুরু হয়ে কোচবিহারেই শেষ হয়েছে বলে দাবি তাঁর।

একই সঙ্গে সহ-সভাপতির হুঁশিয়ারি, ”ভারতীয় জনতা পার্টিকে আটকানোর ক্ষমতা বাংলায় কোন রাজনৈতিক দলের নেই। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ২০১৯ এর লোকসভা ভোটেই ‘ফিনিশ’ হয়ে যাবেন বলেও তিনি দাবী করেন।

যদিও জেলা তৃণমূলের পক্ষ থেকে এই বিষয়ে এখনও পর্যন্ত কোন প্রতিক্রিয়া মেলেনি।