শ্রীরূপা পত্রনবিশ: ধর্ম মানুষের আস্থা ও বিশ্বাসের জায়গা ।তাই সেটা নিয়ে কখনোই রাজনীতি করা উচিত নয় বলে মনে করেন বাগবাজার গৌড়ীয় মিশন- এর প্রধান ভক্তি সুন্দর সন্ন্যাসী মহারাজ।

মহাপ্রভু শ্রীচৈতন্যদেবের ৫৩৩ আবির্ভাবের বর্ষপূর্তি উপলক্ষে শ্রীচৈতন্য মেলা এবং গৌড়ীয় মঠ ও মিশনের শতবর্ষ পূর্তি অনুষ্ঠান উপলক্ষে কলকাতা শহরে এক বিরাট পদযাত্রা অনুষ্ঠিত হলো রবিবার।

দুপুর দুটো নাগাদ ‘নগর সংকীর্তন শোভাযাত্রা’ কলকাতার ধর্মতলার মেট্রো চ্যানেল থেকে বেরিয়ে বেন্টিং স্ট্রিট ,রবীন্দ্র সরণি, গণেশ টকিজ, বি কে পাল এভিনিউ, বাগবাজার স্ট্রিট হয়ে বাগবাজারে গৌড়ীয় মঠে এসে শেষ হয় ।এরপর বাগবাজার সার্বজনীন দুর্গোত্সব উদ্যানে শ্রীচৈতন্য জন্মোৎসব ও মেলার সূচনা হয়। মেলা চলবে আগামী ৫ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত।মেলায় প্রতিদিন থাকছে নানা ধর্মীয় আলোচনা, কুইজ, বসে আঁকো, নগর সংকীর্তন সহ নানা অনুষ্ঠান। শ্রীচৈতন্যদেবের কাটআউট, তার বাণী এবং গৌড়ীয় মঠের নানা কর্মকাণ্ড পদযাত্রার মাধ্যমে তুলে ধরা হয়। রাজ্যের বিভিন্ন জেলা থেকে হাজার হাজার চৈতন্য প্রেমি মানুষ পদযাত্রায় অংশ নেন। তারা নগর সংকীর্তনের মাধ্যমে ধর্মতলা থেকে পায়ে পায়ে এগিয়ে যান বাগবাজার গৌড়ীয় মঠে।

গৌড়ীয় মঠের প্রধান ভক্তি সুন্দর সন্ন্যাসী মহারাজ বলেন, বর্তমান যুগে হিংসা ও অশান্তির দিনে মহাপ্রভুর বিশ্ব ভ্রাতৃত্ব, শান্তি ও বিমল প্রেম দর্শনের বার্তা সর্বত্র ছড়িয়ে দিতেই তাদের এই উদ্যোগ। পদযাত্রার আয়োজন করেছিল গৌড়ীয় মিশন, মহানাম সেবক সংঘ ওপিপলস ফোরাম ফর শ্রী চৈতন্য মহাপ্রভু।