কলকাতা: করোনা আতঙ্কে বন্ধ রাজ্য বিধানসভা। এবার বিধানসভা বন্ধ থাকাকালীন করোনা তহবিলে বিধায়কদের একমাসের ভাতা দান করার আবেদন জানালেন অধ্যক্ষ বিমান বন্দ্যোপাধ্যায়। করোনা মোকাবিলায় রাজ্যের ত্রাণ তহবিলে সেই ভাতা দিতে বিধায়কদের আবেদন জানিয়েছেন অধ্যক্ষ।

সম্প্রতি নবান্নে করোনা মোকাবিলায় সর্বদল বৈঠক করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। মুখ্যমন্ত্রীর ডাকা বৈঠকে যোগ দিয়েছিলেন রাজ্যের বিরোধী দলের নেতারা। দলমত নির্বিশেষে করোনা মোকাবিলায় রাজ্যকে সবরকম সাহায্যের প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন বিরোধী নেতারা। বৃহস্পতিবার বিধায়কদের করোনা ত্রাণ তহবিলে ভাতা দিতে আবেদন জানিয়ে বিরোধীদের সেই প্রতিশ্রুতির কথা মনে করিয়ে দেন অধ্যক্ষ। একটি ভিডিও বার্তায় করোনা মোকাবিলায় রাজ্যের ত্রাণ তহবিলে বিধায়কদের তাদের এক মাসের ভাতা দান করতে আবেদন জানিয়েছেন বিমান বন্দ্যোপাধ্যায়।

ইতিমধ্যেই, জেলার হাসপাতালগুলিতে করোনা ভাইরাস মোকাবিলায় প্রয়োজনীয় পরিকাঠামো নির্মাণের জন্য বাম বিধায়করা তাঁদের তহবিল থেকে ১০ লক্ষ টাকা দান করবেন বলে জানিয়েছেন। গতকালই তৃণমূল যুব কংগ্রেসের তরফ থেকে রাজ্য সরকারের করোনা ত্রাণ তহবিলে ১ কোটি টাকা অনুদান দেওয়া হয়েছে।

করণা মোকাবিলায় ২০০ কোটি টাকার প্যাকেজ ঘোষণা করেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়। একটানা লকডাউন চলায় ব্যবসা-বাণিজ্যের ক্ষেত্রে দারুন সংকট তৈরি হয়েছে। কৃষক,শ্রমিক থেকে শুরু করে সাধারণ মানুষ বিপাকে পড়েছেন। ভয়ঙ্কর ভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে রাজ্যের আর্থিক অবস্থা।

এই পরিস্থিতিতে সার্বিকভাবে সাহায্য করতেই ২০০ কোটির প্যাকেজ ঘোষণা করেছেন মুখ্যমন্ত্রী। এবার করোনা মোকাবিলায় বিধায়কদেরও এগিয়ে আসতে আবেদন জানালেন অধ্যক্ষ বিমান বন্দ্যোপাধ্যায়।

পপ্রশ্ন অনেক: নবম পর্ব

Tree-bute: আমফানের তাণ্ডবের পর কলকাতা শহরে শতাধিক গাছ বাঁচাল যারা