স্টাফ রিপোর্টার, বারাকপুর: ফের বোমাবাজি উত্তর ২৪ পরগনার ভাটপাড়া এলাকায়। এবার ভাটপাড়া থানার অন্তর্গত কাঁকিনাড়া ৫ নম্বর রেলওয়ে সাইডিং রোডে বাদল সিংয়ের বাড়িতে বোমা মারল দুষ্কৃতীরা । এই ঘটনায় বৃহস্পতিবার দুপুরে ফের উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে ভাটপাড়া এলাকায়। ঘটনাকে কেন্দ্র করে ব্যাপক উত্তেজনা তৈরি হয়েছে।

আজ বৃহস্পতিবার বাদল সিংয়ের স্ত্রী প্রিয়াঙ্কা সিং তার ছোট এক মাসের শিশুকে নিয়ে ঘরে ছিলেন। শিশুটি ঘুমাচ্ছিল বলে জানা যায়। হঠাৎই বাদল সিংয়ের টালির চালে বোমা পড়ে বলে অভিযোগ। এই ঘটনায় আতঙ্কিত হয়ে পড়েন প্রিয়াঙ্কা দেবী। সঙ্গে সঙ্গে তিনি তার সন্তানকে বাঁচাতে কোন ক্রমে ঘর থেকে বাইরে বেরিয়ে আসেন। খবর পেয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে ছুটে আসে ভাটপাড়া থানার বিশাল পুলিশ বাহিনী । ঘটনাস্থলে পুলিশ আসলে পুলিশ কর্মীদের উপর ক্ষোভ প্রকাশ করেন এলাকার বাসিন্দারা।

গৃহবধূ প্রিয়াঙ্কা সিং বলেন, “আকস্মিক আমার ঘরে দুষ্কৃতীরা বোমা মারল। বোমার আঘাতে টালির চাল ভেঙে পড়েছে। আজকে আমার এক মাসের সন্তানের কিছু ক্ষতি হয়ে গেলে এর দায় কে নিত ? আমার স্বামী জুটমিলের কর্মী। সে বাড়িতে ছিল না । এভাবে আমাদের উপর হামলা হলে পুলিশ কি করতে আছে? শুধু এসে ছবি তুলে নিয়ে গেছে বলে চাঞ্চল্যকর অভিযোগ পুলিশ প্রশাসনের বিরুদ্ধে। প্রিয়াঙ্কাদেবীর দাবি, দুষ্কৃতীদের গ্রেফতার করে অবিলম্বে কঠোর শাস্তি দিক পুলিশ । কোন নিরাপত্তা নেই আমাদের এই এলাকার সাধারন মানুষের ।” গোটা ঘটনায় আতঙ্কিত ৫ নম্বর রেলওয়ে সাইডিং এলাকার সাধারন বাসিন্দারা ।

তারা বলেন, বৃহস্পতিবার দুপুর ১২ টা নাগাদ আচমকা এই বোমাবাজির ঘটনা ঘটে। এত পুলিশ থাকা সত্বেও সাধারন মানুষের নিরাপত্তা নেই । চোরাগোপ্তা বোমাবাজি, হামলা চলছে ভাটপাড়া, কাঁকিনাড়া এলাকায় । স্থানীয় বাসিন্দাদের বক্তব্য, এলাকায় দুষ্কৃতীরা বহাল তবিয়তে ঘুরে বেড়াচ্ছে । পুলিশ তাদের গ্রেফতার করতে পারেনি, সেই কারনে চোরাগোপ্তা হামলা,বোমাবাজি চলছেই । ভাটপাড়া থানার পুলিশ গোটা ঘটনার তদন্তে নেমেছে, এই ঘটনায় পুলিশ স্থানীয় বাসিন্দাদের সঙ্গে কথা বলে দুষ্কৃতীদের সন্ধানে তল্লাশি শুরু করেছে । পুলিশ জানিয়েছে, দোষী কেউ ছাড়া পাবে না ।