সিডনি: সিডনির বাইশ গজে তখন অজি বোলারদের কড়া হাতে শাসন করছেন ভারতীয় ক্রিকেটের তরুণ তুর্কি। হ্যাজেলউড, লায়নদের ডেলিভারিগুলো পন্তের চওড়া ব্যাটে লেগে খুঁজে নিচ্ছে বাউন্ডারির ঠিকানা। ঠিক তখনই গ্যালারিতে পন্ত স্তুতি ভারত আর্মির গলায়। সিডনির গ্যালারিতে পন্তের ব্যাটিংয়ে মুগ্ধ ভারত আর্মি তাঁকে নিয়ে বেঁধে ফেলল একটা আস্ত গান। সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট হতেই যা ভাইরাল হল নিমেষে।

উল্লেখ্য, সিরিজের শুরু থেকে মৌখিক তরজায় অজিদের সঙ্গে জড়িয়ে পড়েছেন বারবার। পন্তকে পেইনের ‘বেবিসিট’ চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে দেওয়া হোক কিংবা সেই চ্যালেঞ্জ নিজস্ব ঢঙে পন্তের গ্রহণ করা, সবমিলিয়ে পন্ত শিরোনামে থেকেছে সিরিজের শুরু থেকেই। অ্যাডিলেডে গ্লাভস হাতে উইকেটের পিছনে রেকর্ড গড়লেও ব্যাট হাতে বড় রানের ইনিংস খেলতে ব্যর্থ হচ্ছিলেন বারবার। অবশেষে সিডনিতে সিরিজের শেষ টেস্টে এল কাঙ্খিত শতরান। ১৮৯ বলে পন্তের ১৫৯ রানের দুরন্ত ইনিংস ভারতকে পৌঁছে দিল রানে চূড়ায়।

আর তাই দেখে গ্যালারিতে ভারত আর্মি গান বাঁধল, ‘হি উইল হিট ইউ ফর আ সিক্স/ হি উইল বেবিসিট ইউর কিডস/ উই হ্যাভ গট ঋষভ পন্ত…’। ভারত আর্মির গানের লাইনগুলো শুনে একটা বিষয় পরিষ্কার স্লেজিং হোক কিংবা ব্যাটিং, আবার মাঠের বাইরে ‘বেবিসিট’র মত চ্যালেঞ্জ স্বকীয় ভঙ্গিতে গ্রহণ করা। সবমিলিয়ে অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে কেরিয়ারের প্রথম সফরেই ‘সুপারহিট’ দিল্লির এই তরুণ তুর্কি। তাই তাদের গানের মধ্যে দিয়ে পন্তের মত একজন রিয়েল এন্টারটেইনারকে কুর্নিশই জানিয়েছে ভারত আর্মি।

সিডনিতে চতুর্থ টেস্টের দ্বিতীয় দিন শুধু শতরানই নয়। শতরান করার পথে এদিন বেশ কয়েকটি রেকর্ড গড়েন পন্ত৷ তিনিই হলেন প্রথম ভারতীয় উইকেটকিপার, যিনি অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে টেস্ট সেঞ্চুরি করলেন৷ ১৯৬৭ সালে অ্যাডিলেডে ফারুখ ইঞ্জিনিয়রের করা ৮৯ রানের ইনিংসটিই ছিল এতদিন অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে করা কোনও ভারতীয় উইকেটকিপারের সর্বোচ্চ টেস্ট ইনিংস৷

গত বছর প্রথম ভারতীয় উইকেটকিপার হিসাবে ইংল্যান্ডের মাটিতে টেস্ট সেঞ্চুরি করেছিলেন পন্ত৷ নটিংহ্যামে টেস্ট অভিষেক৷ সাউদাম্পটন ঘুরে ওভালে কেরিয়ারের তৃতীয় টেস্টেই করেছিলেন মাডেন টেস্ট সেঞ্চুরি৷ওভালের ১১৪ রানের ইনিংসটি এতদিন ছিল পন্তের টেস্ট তথা আন্তর্জাতিক কেরিয়ারের সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত ইনিংস৷ সিডনিতে ওভালের শতরানকে ছাপিয়ে যেতে বিশেষ সময় লাগেনি তাঁর৷ সিডনিতে ১৮৯ বলে তাঁর ১৫৯ রানের ইনিংসটি সাজানো রয়েছে ১৫টি চার ও একটি ছয়ে।