স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা: পশ্চিমবঙ্গে রাজনৈতিক সন্ত্রাসের অভিযোগে নিহতদের পরিবারকে দিল্লিতে ‘পিপলস ট্রাইব্যুনালে’ হাজির করতে চলেছে রাজ্য বিজেপি। দুদিনের এই ট্রাইব্যুনালে মুখ্য অতিথি হিসাবে থাকবেন প্রাক্তন বিদেশমন্ত্রী সুষমা স্বরাজ। রাজ্যের ১৮ জন সংসদ এই ট্রাইব্যুনালে উপস্থিত থাকবেন। বিজেপির শীর্ষ স্থানীয় কিছু নেতারও এই ট্রাইব্যুনালে থাকার কথা।

২১ জুলাই মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় শহিদ দিবসের মঞ্চ থেকে বিজেপিকে ‘বাক্যবাণে’ বিদ্ধ করেছেন। বিভিন্ন ইস্যুতে বিজেপিকে আক্রমণ শানালেও যাঁদের স্মরণে এই জনসভা, তাঁরা মমতার বক্তব্যে উঠে আসেননি। অন্যদিকে, রাজনৈতিক সন্ত্রাসের অভিযোগে নিহতদের পরিবারের দুই জন সদস্যকে দিল্লিতে ট্রাইব্যুনালে হাজির করিয়ে তৃণমূলকে চাপে রাখতে চেয়েছে বিজেপি।

বসিরহাটের ন্যজোটের ভঙ্গিপাড়ায় নিহত প্রদীপ মণ্ডলের স্ত্রী, দারিভিটের রাজেশ-তাপসের মা, খণ্ডঘোষের বেরুগ্রামের নিহত গোপাল পালের স্ত্রী লক্ষ্মী পাল সহ মোট ২৩ টি পরিবারের ৪৬ জন দিল্লিতে গিয়েছেন সোমবার বিকালে। রাজ্য বিজেপির মিডিয়া সেলের ইনচার্জ সপ্তর্ষি চৌধুরীর উদ্যোগে এই ২৩ নিহতের পরিবারের সদস্যরা দিল্লিতে গিয়েছেন।

রাজ্য বিজেপি সূত্রে যা খবর, ২৪ এবং ২৫ জুলাই দিল্লিতে বসবে পিপলস ট্রাইব্যুনাল অন পলিটিক্যাল ভায়োলেন্স ইন ওয়েস্ট বেঙ্গল। একটি স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা- ‘কল ফর জাস্টিস’ উদ্দ্যোগ নিয়েছে। উল্লেখযোগ্য, রাজ্যে রাজনৈতিক সন্ত্রাসের অভিযোগে যে বিজেপি কর্মীরা নিহত হয়েছেন তাদের পরিবারকে নিয়ে আগেও দিল্লি গিয়েছে বিজেপি।

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর শপথেও তাঁদের নিয়ে যাওয়া হয়েছিল। আর ওই পরিবারগুলির সদস্যরা গিয়েছিলেন বলেই প্রধানমন্ত্রীর শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে যাননি মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।