কলকাতা: চার সদস্যের আইপিএল ওয়ার্কিং গ্রুপের হাতে ঝুলছে চেন্নাই ও রাজস্থান ফ্র্যাঞ্চাইজির ভাগ্য৷
আগামী দেড় মাসের মধ্যেই তৈরি হয়ে যাবে আইপিএল নাইন-এর রূপরেখা৷ বোর্ড সুত্রের খবর, চেন্নাই ও রাজস্থান ফ্র্যাঞ্চাইজির পরিবর্ত হিসেবে দু’ বছরের জন্য দু’টি নতুন ফ্র্যাঞ্চাইজির পক্ষে আইপিএল গভর্নিং কাউন্সিলের বেশিরভাগ সদস্যই৷ কোনও অঘটন না-ঘটলে আইপিএল নাইনে ফের আইপিএলে আর্বিভাব হতে চলেছে কোচি টাস্কার্সের৷ আর আদানি গোষ্ঠির হাত ধরে নতুন ফ্র্যাঞ্চাইজি হিসেবে আইপিএল-এ পা-রাখতে চলেছে আমেদাবাদ৷
২০১৮ আইপিএল-এ নতুন করে ফ্র্যাঞ্চাইজির নিলাম হবে৷ কারণ ২০০৮ থেকে দশম আইপিএল-এর পর শেষ হচ্ছে সমস্ত ফ্র্যাঞ্চাইজির চুক্তি৷ তাই আইপিএল গভর্নিং কাউন্সিলের অধিকাংশ সদস্যই চান লোধা কমিশনের রায় মেনে দু’ বছরের নির্বাসন বজায় থাকুক চেন্নাই সুপার কিংস ও রাজস্থান রয়্যালসের৷ এই দু’ বছরে নতুন দু’টি ফ্র্যাঞ্চাইজিকে নিয়ে আট দলের আইপিএল হবে নবম ও দশম সংস্করণে৷ একাদশ সংস্করণ থেকে সম্পূর্ণ নতুন ভাবে আর্বিভাব ঘটবে ভারতীয় ক্রিকেটের এই মিলিয়ন ডলার টুর্নামেন্ট৷
লোধা কমিশনের রায় পর্যালোচনার জন্য রবিবার চার সদস্যের ওয়ার্কিং গ্রুপ গঠন করেছে আইপিএল গভর্নিং কাউন্সিল৷ চার সদস্যের কমিটিতে রয়েছেন আইপিএল চেয়ারম্যান রাজীব শুক্লা, বোর্ড সচিব অনুরাগ ঠাকুর, বোর্ডের কোষাধ্যক্ষ অনিরুদ্ধ চৌধুরি এবং ক্রিকেটারদের প্রতিনিধি হিসেবে প্রাক্তন ভারত অধিনায়ক সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়৷ বোর্ডের বিশিষ্ট আইনজীবী উষানাথ বন্দ্যোপাধ্যায়ের পরামর্শে চেন্নাই ও রাজস্থান ফ্র্যাঞ্চাইজি নিয়ে ছ’ সপ্তাহের মধ্যে বোর্ডকে রির্পোট দেবে চার সদস্যের এই কমিটি৷