মুম্বই: সোমবার ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড বিদায়ী স্পনসর নাইকে প্রতিস্থাপনের জন্য দরপত্র ঘোষণা করল বিসিসিআই৷ এর মাধ্যমে দলের কিট স্পনসর এবং অফিসিয়াল মার্চেন্ডাইজিং পার্টনার অধিকারের জন্য বিড আমন্ত্রণ জানিয়েছে।

দলের বর্তমান পোশাক স্পনসরশিপ অধিকারধারীরা নাইকের চুক্তিটি আগামী মাসে শেষ হতে চলেছে। ক্রীড়া পোশাক জায়ান্টের বিসিসিআই-এর সঙ্গে ৩০ কোটি রয়্যালটি নিয়ে ৩৭০ কোটি টাকায় চার বছরের চুক্তি হয়েছিল। আমন্ত্রণ টেন্ডার (আইটিটি) এর অধীনে বিজয়ী দরদাতাকে কিট স্পনসর এবং সরকারি মার্চেন্ডাইজিং অংশীদার এবং অন্যান্য সম্পর্কিত অধিকার হিসাবে মঞ্জুরি দেওয়া হবে।

বিসিসিআই-এর এক বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, ‘যোগ্যতার প্রয়োজনীয়তা এবং কার্য সম্পাদনের বাধ্যবাধকতা-সহ বিড জমা দেওয়ার ও মূল্যায়নের নিয়ন্ত্রণকারী শর্তাদি আইটিটি-র অন্তর্ভুক্ত রয়েছে, যা এক লক্ষ টাকার টেন্ডার ফি প্রদানের পরে ২০২০-এর ৩ অগস্ট থেকে পাওয়া যাবে৷’

বিবৃতিতে আরও বলা হয়েছে, বিসিসিআই কোনও কারণ প্রদান না-করে যে কোনও পর্যায়ে বিডিং প্রক্রিয়া বাতিল বা সংশোধন করার নিজস্ব বিবেচনার ভিত্তিতে অধিকার সংরক্ষণ করে৷ আইটিটি কেনার সঙ্গে সঙ্গে ক্রেতাকে বিড দেওয়ার অধিকার দেওয়া হয় না৷ তবে বিড করার জন্য ক্রেতাকে অবশ্যই আইটিটি কিনতে হবে তার নামে বিড করতে ইচ্ছুক ব্যক্তি/ সত্তা৷’

তবে আইপিএলে এখনই চিনা স্পনসর-সহ অন্যান্য সমস্ত স্পনসরকেই টুর্নামেন্টে অন্তর্ভুক্ত রাখা হয়েছে৷ অর্থাৎ ২০২০ আইপিএলে আগের মতো চিনা মোবাইল সংস্থাকে ভিভোকেই দেখা যাবে৷ আইপিএলের ত্রয়োদশ সংস্করণ অনুষ্ঠিত হতে চলেছে সংযুক্ত আরব আমিরশাহীতে৷ টুর্নামেন্ট শুরু হবে ১৯ সেপ্টেম্বর৷ ফাইনাল ১০ নভেম্বর৷

পপ্রশ্ন অনেক: নবম পর্ব

Tree-bute: আমফানের তাণ্ডবের পর কলকাতা শহরে শতাধিক গাছ বাঁচাল যারা