লন্ডন: লকডাউন পরবর্তী সময় চ্যাম্পিয়ন্স লিগ নক-আউট পর্বের একটি ম্যাচের পর সোশ্যাল মিডিয়ায় থিয়াগো আলকান্তারাকে দলে পাওয়ার ইচ্ছেপ্রকাশ করেছিলেন লিভারপুল বস জুর্গেন ক্লপ। এরপর বায়ার্ন মিউনিখের হয়ে চ্যাম্পিয়ন্স লিগ জয়ের সেলিব্রেশনের মাঝে মাঠে শুয়ে স্প্যানিশ ফুটবলারের মুঠোফোনে ভিডিও কলিংয়ের একটি ছবি ভাইরাল হয়েছিল নেটদুনিয়ায়। যা দেখে নেটিজেনরা বলছিলেন হয়তো ক্লপের সঙ্গেই চুক্তিটা সেরে ফেলছেন থিয়াগো।

বেশ কয়েক সপ্তাহের জল্পনার পর অবশেষে বায়ার্নের চ্যাম্পিয়ন্স লিগ জয়ের অন্যতম কান্ডারিকে দলে নিয়ে দলবদলের প্রথম চমকটা দিল লিভারপুল। বৃহস্পতিবার বায়ার্ন মিউনিখ চেয়ারম্যান কার্ল-হেইঞ্জ রুমেনিগে জানিয়ে দিলেন বায়ার্ন লিভারপুলের সঙ্গে আলকান্তারার ট্রান্সফার চুক্তির বিষয়ে সম্মত হয়েছে। রুমেনিগে বলেছেন, ‘আমি লিভারপুলের সঙ্গে বায়ার্নের চুক্তির ব্যাপারে এক্ষেত্রে নিশ্চয়তা প্রদান করতে পারি।’ জার্মান ডেইলি বিল্ডকে তিনি বলেন, ‘থিয়াগোর ভীষণ ইচ্ছে ছিল কেরিয়ারে ইতি টানার আগে আরও একবার নতুন কিছু করা।’

বায়ার্ন মিউনিখের সঙ্গে চুক্তি শেষ হওয়ার একবছর আগেই লিভারপুলে যোগদান করছেন আলকান্তারা। আর এজন্য ট্রান্সফার-ফি হিসেবে প্রাথমিকভাবে ২০ মিলিয়ন পাউন্ড ইংল্যান্ড চ্যাম্পিয়নদের দেবে ইউরোপিয়ান চ্যাম্পিয়নরা। পরে অ্যাড-অন হিসেবে আরও কিছু যোগ হবে। জার্মান সংবাদপত্রে প্রকাশিত খবর অনুযায়ী, বৃহস্পতিবার থেকেই বায়ার্নের অনুশীলনে অনুপস্থিত আলকান্তারা। দলবদলের বাজারে শুরু থেকেই স্প্যানিশ প্লে-মেকার লিভারপুলের র‍্যাডারে থাকলেও মাঝমাঠে উইনালডমের কারণে সই করানোর আগে সন্তর্পণে পা ফেলছিল ইংল্যান্ড চ্যাম্পিয়নরা।

এমনকি এরপর আলকান্তারাকে দলে নেওয়ার জন্য লিভারপুলের পাশাপাশি আসরে নামে ম্যাঞ্চেস্টার ইউনাইটেডও। কিন্তু উইনালডম বার্সেলোনায় যোগাযোগের চেষ্টা করছেন এমন খবর প্রকাশ্যে আসার পরেই আলকান্তারাকে নিয়ে আর ঝুঁকি নিতে চাইনি রেডস’রা। গ্রিসের লেফট-ব্যাক কোস্তাস তিমিকাসের পর দলবদলের বাজারে দ্বিতীয় ফুটবলার হিসেবে আলকান্তারাকে দলে নিতে চলেছে লিভারপুল। অন্যদিকে, দীর্ঘ ৭ বছর জার্মান জায়ান্টদের সঙ্গে থাকার পর প্রিমিয়র লিগ জায়ান্টদের দলে যোগদান করতে চলেছেন আলকান্তারা।

পচামড়াজাত পণ্যের ফ্যাশনের দুনিয়ায় উজ্জ্বল তাঁর নাম, মুখোমুখি দশভূজা তাসলিমা মিজি।