বার্সেলোনা: মাঠের লড়াইয়ে চিরশত্রু হলেও মাঠের বাইরে একে অপরের প্রতি অত্যন্ত শ্রদ্ধাশীল দুই স্প্যানিশ জায়ান্ট রিয়াল মাদ্রিদ ও বার্সেলোনা৷ দুই ক্লাবের ফুটবলাররাও যে প্রতিপক্ষ ফুটবলারদের কতটা সমীহ করেন, তার প্রমাণ পাওয়া যায় ব্যালড ডি অরের মঞ্চেই৷

গত বারের ব্যালন ডি’অর জয়ী রিয়াল তারকা লুকা মদ্রিচ এবার উপস্থিত ছিলেন পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে৷ শুধু সশরীরে হাজির থাকাই নয়, তিনি নিজে পুরস্কার তুলে দেন এবারের খেতাব জয়ী বার্সা অধিনায়ক লিওনেল মেসির হাতে৷

আরও পড়ুন: জেসুসের জোড়া গোলে দুইয়ে ফিরল ম্যান সিটি

পরে সোশ্যাল মিডিয়ায় মেসির হাতে ব্যালন ডি’অর তুলে দেওয়ার ছবি পোস্ট করেন মদ্রিচ৷ টুইটারে সেই ছবির ক্যাপশনে মদ্রিচ লেখেন, ‘খেলা এবং ফুটবলে জয়টাই সবকিছু নয়৷ সতীর্থ ও প্রতিপক্ষকে সম্মান জানানোটাও অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ৷’

মদ্রিদের এই টুইটটির রি-টুইটে বার্সেলোনা এফসি রিয়াল মাদ্রিদের ক্রোয়েশিয়ান মিডফিল্ডার লুকা মদ্রিচকে দরাজ  সার্টিফিকেট দেয়৷ মদ্রিচকে এমন আচরণের জন্য ধন্যবাদ জানিয়ে বার্সেলোনা তাঁকে ‘একজন যথার্থ ভদ্রলোক’ আখ্যা দেয়৷

আরও পড়ুন: মেসির দখলে হাফ-ডজন ব্যালন ডি’অর

মদ্রিচ এবার ব্যালন ডি’অর জয়ের দৌড়ে ছিলেন না৷ তিনি পুরস্কার পাচ্ছেন না জেনেও আয়োজকদের আমন্ত্রণ ফেরাননি মদ্রিচ৷ এমনকি মেসির হাতে পুরস্কার তুলে দেওয়ার আয়োজকদের অনুরোধও রক্ষা করেন মদ্রিচ৷

পুরস্কার পাচ্ছেন না জেনে ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডে এবারও ব্যালন ডি’অরের মঞ্চে হাজির হননি৷ যা নিয়ে ঘুরিয়ে সিআর সেভেনের সমালোচনাও করেন মদ্রিচ৷ তিনি বলেন, ‘ফুটবলে পারস্পরিক সম্মানের বিষয়টা প্রাধান্য পায়৷ যদি পুরস্কার নাও জেতো, তবুও সম্মান জানানোর বিষয়টা ভুলে যাওয়া উচিত নয়৷ তোমার অবশ্যই অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকা উচিত৷ কারণ এটা শুধু পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান ন, ফুটবলের সেলিব্রেশন৷’

পপ্রশ্ন অনেক: চতুর্থ পর্ব

বর্ণ বৈষম্য নিয়ে যে প্রশ্ন, তার সমাধান কী শুধুই মাঝে মাঝে কিছু প্রতিবাদ