নয়াদিল্লি: এবার থেকে বাংলা ভাষাতেও দেওয়া যাবে ব্যাংকের এন্ট্রান্স পরীক্ষা। শুধু বাংলাই নয়, হিন্দি ও ইংরেজী বাদে মোট ১৩টি ভাষায় এই পরীক্ষা দেওয়া যাবে বলে জানিয়েছেন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামণ।

বৃহস্পতিবার সংসদে এই ঘোষণা করেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী। একটি প্রশ্নের জবাব দিতে গিয়ে তিনি জানিয়েছেন, দেশের রিজিওনাল রুরাল ব্যাংক গ্রামীন ব্যাংকে প্রবেশিকা পরীক্ষা দেওয়া যাবে আঞ্চলিক ভাষায়।

এবার থেকে যেসব ভাষায় পরীক্ষা দেওয়া যাবে সেগুলি হল- অসমিয়া, বাংলা, গুজরাতি, কন্নড়, কোঙ্কনি, মালয়ালম, মনিপুরী, মারাঠি, ওড়িয়া, পাঞ্জাবী, তামিল, তেলেগু ও উর্দু।

বর্তমানে দেশে মোট ৪৫টি গ্রামীণ ব্যাংক রয়েছে। সেখানে মোট কর্মীসংখ্যা ৯০,০০০। এইসব ব্যাংকে অফিসার পদে লোক নেওয়ার জন্য একটি কমন রিক্রুটমেন্ট প্রসেস হয়ে থাকে। যা এদিন শুধু হিন্দি ও ইংরেজিতেই দেওয়া যেত।

সীতারামণ ট্যুইটারে জানিয়েছেন, যাতে দেশের সব প্রান্তের যুবত-যুবতীরা সহজেই কাজের সুযোগ পান, তার জন্যই এমন সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। ২০১৯ থেকেই এই পরিবর্তন হবে বলে জানিয়েছেন তিনি।

এবছর ৩, ৪ ও ১১ অগাস্ট অফিসারের জন্য পরীক্ষা হবে। আর অফিস অ্যাসিস্ট্যান্ট পদের জন্য পরীক্ষা হবে ১৭, ১৮ ও ২৫ অগাস্ট।

আঞ্চলিক ভাষায় ব্যাংকের পরীক্ষা নেওয়ার প্রশ্ন তুলেছিলেন কংগ্রেস সাংসদ জিসি চন্দ্রশেখর। তিনি চেয়েছিলেন যাতে কন্নড় ভাষায় পরীক্ষা নেওয়া হয়। এই বিষয়টিতে গুরুত্ব দেওয়ার কথা আগেই জানিয়েছিলেন সীতারামণ।