স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা: প্রচুর পরিমাণ ইয়াবা ট্যাবলেট সহ গ্রেফতার করা হল এক বাংলাদেশি নাগরিককে। ধৃত ব্যক্তির নাম তাপস আহমেদ। বুধবার রাতের দিকে তাকে গ্রেফতার করে কলকাতা পুলিশের একটি দল। ধৃত ব্যক্তি বাংলাদেশের রাজধানী শহর ঢাকার অদূরে হাজারিবাগ এলাকার বাসিন্দা।

লালবাজারের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে যে বুধবার রাত ১১টা নাগাদ অভিযান চালিয়ে মধ্য কলকাতার কলিন লেন এলাকা থেকে এক বাংলাদেশি নাগরিককে গ্রেফতার করা হয়েছে। তার কাছ থেকে ৪০ গ্রাম ওজনের মোট ৪০০টি ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করা হয়েছে। যার মোট বাজারদর ভারতীয় মুদ্রায় ৮০ হাজার টাকা।

ধৃত ব্যক্তি গত কয়েক বছর ধরে সে কলকাতার ফ্রি স্কুল স্ট্রিট এলাকায় থাকছিল। ভারতে বাস করার জন্য কোনও বোইধ নথি তার ছিল না বলে জানিয়েছেন যুগ্ম নগরপাল(ক্রাইম) প্রবীণ ত্রিপাঠী।

ফ্রি স্কুল স্ট্রিট লাগোয়া এলাকায় হোটেল বা লজগুলিতে বহু বাংলাদেশিরা থাকেন। অন্যান্য দেসের নাগরিকেদেরকেও ওই এলাকায় থাকতে দেখা যায়। পুলিশের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে যে ওই সকল এলাকায় ইয়াবার কারবার করতো ধৃত তাপস আহমেদ। ফ্রি স্কুল স্ট্রিট এবং লাগোয়া মারকুইস স্ট্রিট এলাকায় ইয়াবা বিক্রি চলছে এবং তা ক্রমশ বাড়ছে বলে খবর পায় পুলিশ।

যুগ্ম নগরপাল আরও জানিয়েছেন যে ইয়াবা সাধারণত বাংলাদেশ থেকেই ভারতে পাচার করা হয়। মায়ানমার থেকে পাচার হওয়া ইয়াবা ঢাকা হয়ে কলকাতায় এসেছিল বলে জেরায় জানিয়েছে ধৃত তাপস। প্রবীণ ত্রিপাঠী বলেছেন, “ফ্রি স্কুল স্ট্রিট এলাকার হটেল-লজগুলোতে বাংলাদেশ থেকে পাচার হওয়া ইয়াবা বিক্রি করা হচ্ছে বলে খবর মিলেছে। ওই সকল হোটেল এবং লজের কর্মীরা এই কারবারের সঙ্গে যুক্ত। আমরা তাদের খোঁজে তল্লাশি চালাচ্ছি।” এই ইয়াবা পাচারচক্রের মাথার খোঁজে তদন্ত চালানো হচ্ছে বলে জানিয়েছেন যুগ্ম নগরপাল।

ধৃত তাপস আহমেদের বিরুদ্ধে পার্ক স্ট্রিট থানায় এফআইআর দায়ের করা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে মাদক এবং বিদেশি নাগরিক আইনের একাধিক ধারায় মামলা রুজু করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার তাকে আদালতে তোলা হবে।