ঢাকা: বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (হু) তো আগেই সতর্কবার্তা দিয়েছিল, লকডাউন তুললে করোনার ভয়াবহ হামলা হবে। তাকপরেও টানা ৬৬ দিনের সাধারণ ছুটি তুলে নেয় বাংলাদেশ সরকার। এর পরপরই করোনার বড়সড় সংক্রমণ শুরু। পরিস্থিতি বুঝতে পেরে এবার হটস্পট ভিত্তিক লকডাউন চালু হতে যাচ্ছে।

ইতিমধ্যে কক্সবাজার রেড জোন। চট্টগ্রাম বিভাগের এই বিশ্ব বিখ্যাত সৈকত শহরে শনিবার থেকে শুরু হয়েছে লকডাউন। এবার ঢাকায় চালু হবে। কারণ, ঢাকা শহর ও এই প্রশাসনিক বিভাগে সর্বাধিক সংক্রমণ এবং মৃত্যু হয়েছে।

দি ইকোনিমস্ট সংবাদপত্রের রিপোর্ট, ঢাকায় ৭ লক্ষের বেশি করোনা সংক্রামিত হতে পারে। ইতিমধ্যেই রাজধানী শহরে ভাইরাস সংক্রামিত রোগীর সংখ্যা উদ্বিগ্নজনক। করোনা মহামারীর বিস্তারে বিশ্বের শীর্ষ ২০টি দেশের তালিকায় বাংলাদেশ ঢুকে পড়েছে।

এই অবস্থায় আগামী দু এক দিনের মধ্যে ঢাকার কিছু এলাকায় লকডাউন শুরু করা হবে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্য মন্ত্রকের অতিরিক্ত সচিব হাবিবুর রহমান খান।

ফাইল ছবি

এদিকে স্বাস্থ্য অধিদফতরের হিসেব,দেশে নতুন করে ২ হাজার ৬৩৫ জনের দেহে নভেল করোনাভাইরাস রোগের সংক্রমণ শনাক্ত করা হয়েছে। স্বাস্থ্য অধিদফরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (প্রশাসন) অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা তথ্য জানান দেশে করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হলো ৬৩ হাজার ২৬ জন।এখন পর্যন্ত ৮৪৬ জনের মৃত্যু হয়েছে।

কলকাতার 'গলি বয়'-এর বিশ্ব জয়ের গল্প