ওয়াশিংটন: আমেরিকা যুক্তরাষ্ট্রের ৪৬তম প্রেসিডেন্ট হিসেবে হোয়াইট হাউজে দখলের স্বপ্ন জোরদার হচ্ছে ডেমোক্র্যাট প্রার্থী জো বাইডেনের। সম্ভবত আর কয়েক ঘন্টার মধ্যে ছবিটা পরিষ্কার হয়ে যাবে।

ক্ষমতাসীন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সঙ্গে হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ের পর ৫৩৮টি ইলেকটোরাল ভোটের মধ্যে বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমের হিসেব জানাচ্ছেন বাইবেন ২৫৩টি ইলেক্টোরাল ভোটে এগিয়ে রয়েছেন যেখানে ট্রাম্পের ঝুলিতে ২১৪। ক্ষমতায় আসতে হলে ম্যাজিক ফিগার২৭০টি জয় দরকার।

২০১৬ সালে ট্রাম্পের জেতা উইসকনসিনে জয় ছিনিয়ে নিয়েছেন বাইডেন। তাছাড়া মিশিগানও তার অনুকূলে যাচ্ছিল কিন্তু সেখানে ভোট গণনা স্থগিত রাখার দাবি নিয়ে আদালতে গিয়েছেন ট্রাম্পের নির্বাচনের দায়িত্বে থাকা সংগঠন। তাদের অভিযোগ মিশিগানে ব্যালটের সঠিক হিসেব পাওয়া যাচ্ছে না। তাছাড়া উইসকনসিনেও নতুন করে গণনার দাবি তুলেছে ওই সংস্থা।

বর্তমান প্রেসিডেন্ট ও রিপাবলিকান প্রার্থী ডোনাল্ড ট্রাম্প এখন পর্যন্ত পেয়েছেন ২১৪টি ইলেকটোরাল ভোট। যদিও ভোট গণনা শেষ হওয়ার আগেই হঠাৎ নিজেকে বিজয়ী ঘোষণা করে বিতর্কে জড়িয়েছেন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প। এমনকি ভোট গণনা বন্ধে তিনি সুপ্রিমকোর্টের দারস্থ হওয়ার সিদ্ধান্তের কথাও জানিয়েছিলেন।

বাইডেনের বিজয়ের স্বপ্নে ট্রাম্পের দ্বিতীয়বারের মতো মার্কিন প্রেসিডেন্ট হওয়ার স্বপ্ন অধরা থেকে যাচ্ছে বলে আপাতদৃষ্টিতে মনে হচ্ছে।

এদিকে, ভোটপ্রাপ্তির দিক দিয়ে ডেমোক্র্যাট প্রার্থী হিসেবে প্রাক্তন মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামাকেও ছাড়িয়ে গেছেন একই দলের প্রার্থী জো বাইডেন।২০০৮ সালের নির্বাচনে বারাক ওবামা ৬ কোটি ৯৪ লাখ ৯৮ হাজার ৫১৬ ভোট পেয়েছিলেন। জো বাইডেন এখন পর্যন্ত ৭ কোটি ৭ লাখেরও বেশি ভোট পেয়েছেন। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে এখন পর্যন্ত এত বেশি ভোট পেয়ে কোনো প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হননি।

লাল-নীল-গেরুয়া...! 'রঙ' ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা 'খাচ্ছে'? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম 'সংবাদ'! 'ব্রেকিং' আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের। কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে 'রঙ' লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে 'ফেক' তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই 'ফ্রি' নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.

করোনা পরিস্থিতির জন্য থিয়েটার জগতের অবস্থা কঠিন। আগামীর জন্য পরিকল্পনাটাই বা কী? জানাবেন মাসুম রেজা ও তূর্ণা দাশ।