নয়াদিল্লি: পরিসংখ্যান বলছে, ০-২ পিছিয়ে থেকে কোনও দিন ওয়ান ডে সিরিজ জেতেনি অস্ট্রেলিয়া৷ কিন্তু ঘরের মাঠে কোহলিব্রিগেডের কাছে প্রথমবার দ্বি-পাক্ষিক সিরিজ হারের পর ভারতে এসে ওয়ান ডে সিরিজে তাদের দুরন্ত প্রত্যাবর্তন প্রত্যয়ী করে তুলেছে অজিদের। তাই ০-২ ব্যবধানে পিছিয়ে থেকে সমতা ফেরানোর পর এবার অজিদের লক্ষ্য বিশ্বকাপের আগে ভারতের মাটিতে সিরিজ জয়। কোটলা ওয়ান ডে’র আগে স্বাভাবিকভাবেই চাপে রেখেছে টিম ইন্ডিয়াকে। সেই লক্ষ্যে নির্ণায়ক ম্যাচে ফিরোজ শা কোটলায় বুধবার টসে জিতে প্রথমে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নিল অস্ট্রেলিয়া।

টসে হেরে বিরাট জানালেন কোটলার পিচে টসে জিতলে প্রথমে ব্যাটিং করার সিদ্ধান্তটা স্বাভাবিক পছন্দ। তাই টস গুরুত্বপূর্ণ হয়ে দাঁড়ায় কিনা ‘ডু অর ডাই’ ম্যাচে সেটা সময় বলবে। কিন্তু নির্ণায়ক ম্যাচেও পরীক্ষা-নিরীক্ষার পথে হাঁটল ভারতীয় থিঙ্ক-ট্যাঙ্ক। বোলিং বিভাগ শক্তিশালী করতে ভারতীয় দলে দু’টি পরিবর্তন পঞ্চম ওয়ান ডে-তে। যুবেন্দ্র চাহালের পরিবর্তে দলে এলেন রবীন্দ্র জাদেজা। পাশাপাশি লোকেশ রাহুলের পরিবর্তে মহম্মদ শামিকে অতিরিক্ত পেসার হিসেবে দলে জায়গা দেয় ‘মেন ইন ব্লু’। অর্থাৎ নির্ণায়ক ম্যাচে পাঁচ বোলারে মাঠে নামছে কোহলিব্রিগেড।

অন্যদিকে সিরিজ জয়ের লক্ষ্যে পঞ্চম তথা শেষ ওয়ান ডে ম্যাচে অস্ট্রেলিয়া দলেও জোড়া পরিবর্তন। শন মার্শের বদলে দলে ফিরলেন মার্কাস স্টোওনিস এবং জেসন বেহনড্রফের বদলে দলে ফিরলেন স্পিনার ন্যাথন লায়ন। কোটলার ড্রাই পিচে টস জিতে অজি দলনায়ক জানান স্কোরবোর্ডে বড় রান তুলে ম্যাচ জয়ই প্রাথমিক লক্ষ্য দলের।

সিরিজের প্রথম দু’টি ম্যাচ জিতলেও রাঁচি ও মোহালিতে অ্যারন ফিঞ্চদের সামনে আত্মসমর্পণ করে বিরাটবাহিনী৷ মোহালিতে দলের বেশ কয়েকটি পরিবর্তন করে ভারত৷ সিরিজের শেষ দু’টি ম্যাচে ধোনিকে বিশ্রাম দেন নির্বাচকরা৷ ফলে উইকেটের পিছনে গ্লাভস হাতে দেখা যায় ঋষভ পন্তকে৷ কিন্তু তাঁর জঘন্য উইকেটকিপিং প্রশ্নের মুখে পড়ে৷ এছাড়াও রবীন্দ্র জাদেজাকে বসিয়ে কুলদীপ যাদবের সঙ্গে যুবেন্দ্র চাহালকে খেলায় ভারতীয় থিঙ্কট্যাঙ্ক৷

কিন্তু ভারতীয় বোলারদের বিরুদ্ধে পিটিয়ে ৩৫৮ রান তাড়া করে ম্যাচ জিততে বিশেষ বেগ পেতে হয়নি অজিদের৷ পিটার হ্যান্ডকম্বসের দুরন্ত সেঞ্চুরি এবং উসমান খোয়াজা ও অ্যাশলে টার্নারের দুর্দান্ত হাফ-সেঞ্চুরিতে ভর করে মোহালিতে চতুর্থ ম্যাচ জিতে সিরিজে সমতা ফেরায় অস্ট্রেলিয়া৷ কোটলায় পঞ্চম ওয়ান ডে তাই এককথায় ‘কাঁটে কি টক্কর’৷

মোহালিতে ভারতের হারের জন্য জঘন্য বোলিং ও খারাপ ফিল্ডিংকে দায়ি করেছেন ক্যাপ্টেন কোহলি৷ মোহালিতে ম্যাচ হেরে কোহলি বলেন, ‘দিল্লির ম্যাচ উত্তেজক হয়ে গেল৷ শেষ দু’টি ম্যাচ আমাদের চোখ খুলে দিয়েছে৷ সুতরাং কোনও কিছুই গ্র্যান্টেড নয়৷ সিরিজ জিততে পরের ম্যাচে আমাদের আরও পরিশ্রম করতে হবে এবং প্যাশনের সঙ্গে খেলতে হবে৷’