স্টাফ রিপোর্টার, বারাকপুর: সরস্বতী পুজোর প্যাণ্ডেলে হামলা চালাল একদল দুষ্কৃতী৷ বুধবার গভীর রাতে উত্তর ২৪ পরগনার হালিশহর নবনগর পালপাড়া জোড়াপুকুর এলাকায় স্থানীয় তৃনমূল কর্মীদের উপর হঠাৎ দুষ্কৃতী হামলার ঘটনায় উত্তেজনা ছড়াল ওই এলাকায়। নিজের পাড়ার সরস্বতী পুজোর প্যান্ডেলের কাজ করছিলেন স্থানীয় যুবক তৃণমূল কর্মী গৌতম নন্দী সহ ওই পাড়ার আরও বেশ কয়েকজন৷

তারা ঠাকুর নগরে তৃণমূল কংগ্রেসের সভায় যোগ দিয়ে রাতেই এলাকায় ফিরেছিলেন। পাড়ায় ওই যুবকরা একসঙ্গে যখন সরস্বতী পুজোর প্যান্ডেল তৈরীর কাজ করছিলেন, সেই সময় তাঁদের ওপর হামলা চালায় স্থানীয় একদল দুষ্কৃতী। কোকো, রাজেশ, জয়ন্ত নামের কয়েকজন দুষ্কৃতী ও তাদের দলবল গৌতম ও অন্যান্য তৃণমূল কর্মীদের হঠাৎই মারধর করে।

আরও পড়ুন : বিধানসভার নির্বাচনে আশানুরুপ ফল না হওয়াতেই কি বিজেপির নিশানায় CP?

অভিযোগ, লোহার রড, ধারালো অস্ত্র, বাঁশ দিয়ে হামলা করা হয় নবনগর পালপাড়া এলাকার যুবকদের উপর। এই ঘটনায় আহত অবস্থায় সকলকে কল্যাণী জেএনএম হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয় চিকিৎসার জন্য। পরে ওই হাসপাতালে চিকিৎসা করিয়ে ফেরার সময় আবারও সেই দুষ্কৃতীরা রাস্তায় হামলা চালায় জখম যুবকদের উপর। তখন বীজপুর থানার পুলিশকে খবর দেওয়া হলে পুলিশ এসে তাদের উদ্ধার করে।

দুষ্কৃতীরা ঘটনাস্থল ছেড়ে পালিয়ে যায়। কি কারনে ওই কর্মীদের উপর এই হামলা তা বুঝতে পারছেন না আক্রান্তরা। আক্রান্তরা বীজপুর থানায় লিখিত আভিযোগ দায়ের করেছেন৷ এই ঘটনায় পুলিশ এখনও কাউকে গ্রেফতার করতে পারেনি। স্থানীয় সূত্রের খবর, শাসক দলের গোষ্ঠী কোন্দলের জেরে অথবা বিজেপি আশ্রিত দুষ্কৃতীরা এই ঘটনা ঘটিয়েছে। অভিযুক্ত ওই দুষ্কৃতীদের খুঁজছে পুলিশ। এই ঘটনার জেরে হালিশহরের নবনগর এলাকায় চাপা উত্তেজনা রয়েছে।