মেষ: আপনার সঙ্গে সঙ্গীর পারিবারিক জীবনে ঝামেলা সৃষ্টি হতে পারে। গৃহে অতিথি যোগ রয়েছে। বুদ্ধিবলে বিরূপ পরিস্থিতি অনুকূলে নিয়ে আসুন।

বৃষ: কর্মক্ষেত্রে অগ্রগতির সুযোগ। সামাজিকতায় অর্থ ব্যয় হতে পারে। আপনার কর্মদক্ষতায় সংস্থার অগ্রগতি হবে। কোনো অংশীদারি কাজে লাভবান হতে পারেন। বন্ধুর সঙ্গে কোনো অংশীদারি কাজে লাভ হতে পারে।

মিথুন: পারিবারিক কোনো অশান্তি আপনার মনকে দুর্বল করতে পারে। আবেগের বশে ভুল কাজ করতে পারেন। সম্ভব হলে কর্মপদ্ধতিতে পরিবর্তন আনতে হবে। নিকটজনের শারীরিক পরিস্থিতি দুর্বল হতে পারে হঠাৎ। নিকটজনের জন্য ত্যাগ করতে হতে পারে।

কর্কট: কোনো বিশেষ কাজে সুফল পেতে পারেন। অপ্রত্যাশিত যোগাযোগে আয় বাড়তে পারে। কাজের ক্ষেত্রে কোনো সুখবর আশা করতে পারেন। প্রেম ভাগ্য শুভ।

সিংহ: দিনটি আনন্দদায়ক হবে। পারিবারিক সমস্যা মিটে যাবে। ভালো কাজে বন্ধুর সাহায্য পাবেন। পাওনা আদায়ে কুশলী হোন।

আরো পোস্ট- সন্ধ্যা হলেই শুনশান, শ্যামপুরে সন্ধ্যায় ‘লকডাউন’-এর চেহারা

কন্যা: কর্মক্ষেত্রে আয় বৃদ্ধি পাবে। কোনো আত্মীয় শারীরিক অস্থিরতায় ভুগতে পারে। ব্যবসায়ীদের ব্যবসায় ভালো যোগ আসছে।

তুলা:অর্থযোগ ভালো রয়েছে। ব্যবসায় উন্নতির সম্ভাবনা আছে। লোকের কথা শুনে কারুর বিবাদের মাঝে ঢুকবেন না।

বৃশ্চিক: নিজস্ব ধ্যান-ধারণা ও কর্মপন্থাই আপনাকে উন্নতির দিকে নিয়ে যাবে। ভবিষ্যতে কোনো আর্থিক লাভের সূচনা হতে পারে। ব্যবসায় জটিলতা আসতে পারে।

ধনু: নতুন চিন্তাধারায় কাজ করতে শিখুন। কৌশলের অভাবে সঙ্গীর সঙ্গে বিবাদে জড়িয়ে পড়তে পারেন। আত্মীয়ের জন্যে ব্যয় বাড়তে পারে। কর্মক্ষেত্রে চাপ থাকবে। প্রেমের সময় ভালো যাবে না।

মকর: সন্তানের চাকরির কোনো সংবাদে আনন্দিত হবেন। বন্ধুস্থানীয় কোনো ব্যক্তির সঙ্গে বহুদিন পর যোগাযোগে আনন্দ পাবেন। পাওনা আদায়ে উন্নতি হবে। ব্যবসায় জটিলতা কাটিয়ে ওঠার ভালো সময় আসছে সামনে।

কুম্ভ: কোনো গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত গ্রহণে উন্নতি হবে। ব্যবসায় শুভ পরিবর্তন আসতে পারে। প্রিয়জনের স্বাস্থ্যের অবনতি হবে।

মীন: সামাজিক কাজে সুনাম বাড়বে। ব্যবসায়ীরা নতুন কাজের সুযোগ পাবেন। বুদ্ধিবলে সবার মন জয় করতে পারবেন।

লাল-নীল-গেরুয়া...! 'রঙ' ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা 'খাচ্ছে'? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম 'সংবাদ'! 'ব্রেকিং' আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের। কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে 'রঙ' লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে 'ফেক' তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই 'ফ্রি' নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.