নয়াদিল্লি: অরুণাচল প্রদেশে ভারতের প্রতিরক্ষামন্ত্রী নির্মলা সীতারামনের উপস্থিতি নিয়ে আপত্তি জানিয়ে চিন বলেছিল, ভারতের প্রতিরক্ষামন্ত্রী নির্মলা সীতারামনের প্রথম অরুণাচল প্রদেশ সফর এলাকার শান্তি বিঘ্নিত করতে পারে৷ কিন্তু অরুণাচল প্রদেশ ভারতেই অবিচ্ছেদ্য-অভিন্ন অংশ বলে সাফ জানিয়ে দেন ভারতের বিদেশমন্ত্রকের মুখপাত্র রবীশ কুমার৷

সীমান্ত সম্পর্কে আলোচনা চলাকালীন রবীশ কুমার জানান দুপক্ষই একে অন্যের সঙ্গে যুক্ত৷ তবে অরুণাচল প্রদেশ ভারতের অভিন্ন অংশ, আর ভারতীয় নেতাদের সেই স্বাধীনতা রয়েছে যার ভিত্তিতে তাঁরা দেশের অন্যান্য রাজ্যের মতো অরুণাচল প্রদেশেও সফরে যেতে পারেন৷

উল্লেখ্য, চিনা বিদেশ মন্ত্রকের প্রধান হুয়া চুনিং জানান, ভারত-চিন সীমান্তের পূর্ব দিক নিয়ে বিবাদ রয়েছেই৷ ভারতীয় প্রতিরক্ষামন্ত্রীর এই সফর তাই আরও বিতর্কিত হয়ে উঠেছে৷ কারণ এই সফরের জন্য ওই এলাকার শান্তি বিঘ্নিত হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে৷ পাশাপাশি, সীমা বিবাদ সমাধানের জন্য ভারত যে চিনকে সাহায্য করবে এই নিয়ে আশাবাদী চিনা আধিকারিক৷

উল্লেখ্য, চিনের মতে, অরুণাচল প্রদেশ দক্ষিণ তিব্বতের একটি অংশ৷ আর এরইমাঝে দুদিনের সফরে রবিবার অরুণাচলে হাজির হন নির্মলা সীতারামন৷ এখানে তিনি চিন সীমান্তের কাছে অরুণাচল প্রদেশের আনজ জেলায় ভারতীয় সেনার ঘাঁটি এবং তাদের প্রস্তুতি পরিদর্শন করেন৷ এই সফরে তাঁর সঙ্গে উপস্থিত ছিলেন লেফটান্যান্ট জেনারেল অভয়কৃষ্ণ এবং সেনার এক উচ্চপদস্থ আধিকারিক৷

উল্লেখ্য, গত মাসেই সীতারামন সিকিমে ভারত-চিন সীমান্তে না থু লা এলাকায় গিয়েছিলেন৷ সেখানে তিনি অন্য প্রান্তে থাকা চিনা সেনাদের (PLA) অভিবাদন জানান, যা সে সময় সংবাদ মাধ্যম থেকে সোশ্যাল মিডিয়া বিভিন্ন জায়গায় ছড়িয়ে পড়েছিল৷